ঢাকা, বুধবার, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪, ২৪ মে ২০১৭
Risingbd
সর্বশেষ:

ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে চান মাইশুকুর

একে আজাদ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০১-০৬ ৮:০৩:৪৩ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৪-১৭ ২:৪৬:৫৩ পিএম

একে আজাদ, বগুড়া : ওয়ালটন এলইডি টিভি ১৮তম জাতীয় ক্রিকেট লিগের শেষ রাউন্ডে দারুণ এক সেঞ্চুরি করেছেন মাইশুকুর রহমান।

বগুড়ায় রংপুরের বিপক্ষে রাজশাহীর দ্বিতীয় ইনিংসে মাইশুকুর করেন ১৬০। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ক্যারিয়ারে এটি তার ষষ্ঠ সেঞ্চুরি, ক্যারিয়ার সেরা ইনিংসও। শুক্রবার ড্র হওয়া এই ম্যাচে ‘ম্যান অব দ্য ম্যাচ’ও হয়েছেন বগুড়ার ২৫ বছর বয়সি ব্যাটসম্যান।

পরে রাইজিংবিডিকে দেওয়া মাইশুকুরের একান্ত সাক্ষাৎকারটি পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো।

রাইজিংবিডি: ষষ্ঠ সেঞ্চুরি পাওয়ায় আপনার অনুভূতি?
মাইশুকুর: সেঞ্চুরি করায় অবশ্যই আমি আনন্দিত। তবে ক্রিকেটকে পেশা হিসেবে মনে করি। কারণ আমার কাজ দলের জন্য ভালো খেলা।

 

 

রাইজিংবিডি: শহীদ চান্দু স্টেডিয়াম আপনার হোম ভেন্যু, এখানে বছরের শুরুতেই আপনার সেঞ্চুরি। এটিকে কীভাবে দেখছেন?
মাইশুকুর: ঠিক বলেছেন। আমার জন্মভূমি বগুড়া। আর এই মাঠে ছোটবেলা থেকে বেড়ে ওঠা। তাই হোম ভেন্যুতে সেঞ্চুরি করায় নিজেকে কিছুটা বাড়তি আনন্দ দিয়েছে। তবে একজন ক্রিকেটারকে হোম এন্ড অ্যাওয়েতে খেলতে হয়। অন্যান্য মাঠেও আমার সেঞ্চুরি আছে। আর সব সেঞ্চুরি একজন ক্রিকেটারের মনোবল শক্ত করে।

রাইজিংবিডি: বছরের শেষে চট্টগ্রামে ৮১ রানের মাথায় আউট হওয়ায় সেঞ্চুরি বঞ্চিত হয়েছেন। এতে কি আপনার আক্ষেপ আছে?
মাইশুকুর: আসলে সব সময় খেলোয়াররা টিম প্লান অনুযায়ী খেলে থাকেন। চট্টগ্রামে ম্যাচটায় আমাদের ৩৮৭ তাড়া করে জিততে হতো। তাই আমরা চেষ্টা করেছি যত দ্রুত স্কোরবোর্ডে রান করা যায়। তাতে আমিসহ আমার টিম সফল। এ কারণে ওই সময় সেঞ্চুরির চেয়েও আমার কাছে মূল্যবান ছিল দলকে জেতানো। তাই কোনো আক্ষেপ নেই। কারণ আমরা বিজয়ের কাতারে ছিলাম।

রাইজিংবিডি: সামনে বিসিএলে যদি সুযোগ পান, তাহলে আপনার পরিকল্পনা কী?
মাইশুকুর: বিসিএল একটি নতুন টুর্নামেন্ট। এনসিএলে যে পারফরম্যান্স ছিল, তা আরো ওপরের দিকে নিয়ে যাওয়া। যেন আমার ধারাবাহিকতা বজায় থাকে।

রাইজিংবিডি: একজন ক্রিকেটারের পেছনে কারো না কারো অবদান থাকে। আপনার বলার মতো এমন কেউ?
মাইশুকুর: আমার শুরুটা হয়েছিল নিজ এলাকার সাজ্জাদ নামের এক বড় ভাইয়ের হাত ধরে। এরপর তানভীর আলম রিমন ভাই খেলাধুলার সুযোগটা আর একটু বাড়িয়ে দেন। আর যে বড় ভাইয়ের কথা না বললেই নয়, তিনি হলেন আমার বিকেএসপি ও জাহঙ্গীরনগর বিশ্ব বিদ্যালয়ের বড় ভাই আশরাফুল রহমান জিকো। তিনি সব সময় আমার খেলার কৌশল নিয়ে কাজ করে আমাকে মানসিকভাবে শক্তি যোগায়। যে কাজটি জহুরুল ইসলাম অমি ভাইয়ের কাছ থেকেও পেয়ে থাকি।

 

 

রাইজিংবিডি: জানা গেছে চট্টগ্রামে সিরাজ ফোর এইচ নামের একটি ক্রিকেট একাডেমিতে কাজ করছেন, তা নিয়ে যদি কিছু বলেন?
মাইশুকুর: গওহর সিরাজ জামিল স্যার ব্যক্তিগত উদ্যোগে একটি প্রাইভেট ক্রিকেট স্টেডিয়াম করতে চান। ভবিষ্যতে বাংলাদেশে এটি একটি উচ্চ সুবিধা সম্পূর্ণ ক্রিকেট একাডেমি হিসেবে পরিচিতি পাবে। আর আজকের এই ম্যান অব দ্য ম্যাচ গওহর সিরাজ জামিল স্যারকে উৎসর্গ করছি। এবং স্যারকে ধন্যবাদ জানাই যে, এমন একটি ভালো কাজের সাথে আমাকে যুক্ত করায়।

রাইজিংবিডি: রাইজিংবিডিকে সময় দেওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ
মাইশুকুর: আপনাকে এবং রাইজিংবিডি পরিবারকে আমার পক্ষ থেকে ধন্যবাদ রইল।



রাইজিংবিডি/বগুড়া/৬ জানুয়ারি ২০১৭/একে আজাদ/পরাগ

Walton Laptop