ঢাকা, শুক্রবার, ১০ ফাল্গুন ১৪২৫, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

প্রথম শহীদ মিনারের স্বীকৃতির দাবিতে অনলাইনে ভোটিং

তানজিমুল হক : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৯-০২-১১ ২:০৫:০১ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০২-১১ ২:০৫:০১ পিএম

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী: রাজশাহী কলেজে নির্মিত প্রথম শহীদ মিনারের স্বীকৃতির দাবিতে শুরু হয়েছে অনলাইন ভোটিং কার্যক্রম।

রাষ্ট্রভাষা বাংলার দাবিতে ঢাকায় সালাম বরকত রফিক জব্বাররা শহীদ হওয়ার ঘটনায় ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি রাতেই রাজশাহী কলেজে নির্মিত হয়েছিল এই শহীদ মিনার। তবে প্রথম শহীদ মিনার হিসেবে মেলেনি রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি। তাই স্বীকৃতি বাস্তবায়নে মাসব্যাপী এই অনলাইন ভোটিংয়ের উদ্যোগ নিয়েছে রাজশাহী কলেজ রিপোর্টার্স ইউনিটি। আর এতে সহায়তা দিচ্ছে রাজশাহীভিত্তিক কমিউনিটি অনলাইন সংবাদপত্র ‘বরেন্দ্র এক্সপ্রেস’।

রাজশাহী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মহা. হবিবুর রহমান শনিবার নিজের ভোটটি দিয়ে এই কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক সূচনা করেন।

এ সময় তিনি বলেন, ‘ভাষার জন্য সর্বোচ্চ ত্যাগ পৃথিবীর ইতিহাসে বিরল। ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় নিহতের খবর শুনে সেদিন সন্ধ্যার পরে রাজশাহী কলেজের মুসলিম হোস্টেলের সামনে এ-ব্লক এর পূর্ব দিকে শহীদদের স্মরণে ছাত্র সংগ্রাম পরিষদ একটি শহীদ মিনার গড়ে তোলে। সেই সময় থেকেই দেশের প্রথম শহীদ মিনারের রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতির জন্য গুঞ্জন শুরু হয়। কিন্তু এখনও রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি দেওয়া হয়নি।’

তিনি বলেন, রাজশাহী কলেজ রিপোর্টার্স ইউনিটির উদ্যোগে স্বীকৃতির দাবিতে অনলাইন ভোটিং কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এই আবেদনের কপি প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরে পৌঁছে দেওয়া হবে। আশা করি এই উদ্যেগের মাধ্যমেই রাজশাহীবাসীর প্রাণের দাবি পূরণ হবে।’

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- কলেজের শিক্ষক পরিষদ সম্পাদক পিযুষ কান্তি ফৌজদার, সমাজকর্ম বিভাগের প্রধান প্রফেসর ড. জুবাইদা আয়েশা সিদ্দিকা, সমাজবিজ্ঞান বিভাগের প্রধান প্রফেসর ড. নাজনীন সুলতানা, রাজশাহী কলেজ রিপোর্টার্স ইউনিটির উপদেষ্টা ড. মো. সৈয়দ আলী আহসান, আজমত আলী রকি, বরেন্দ্র এক্সপ্রেসের সস্পাদক ফেরদৌস সিদ্দিকী, ভাষা সৈনিক সাইদ উদ্দিন আহমেদের ছেলে রবিউদ্দিন আহমেদ, রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি বাবর মাহমুদ, সমাজকর্মী শরিয়তুল্লাহ সজিব, কলেজ ছাত্রলীগের যুগ্ম সম্পাদক রাসিক দত্ত প্রমুখ।

রাজশাহী কলেজ রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি বাবর মাহমুদ ও সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান জানালেন, চাইলে যে কেউ যে কোন স্থান থেকে www.barendraexpress.com.bd/firstshahidminar লিংকে গিয়ে অনলাইন আবেদনে অংশ নিতে পারবেন। এই দাবির পক্ষে কারো কাছে দালিলিক প্রমাণ থাকলে তা দিয়েও সহায়তার আহবান জানিয়েছেন তারা।

 

 

 

রাইজিংবিডি/রাজশাহী/১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯/তানজিমুল হক/টিপু

Walton Laptop
 
     
Marcel
Walton AC