ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ ভাদ্র ১৪২৪, ২৪ আগস্ট ২০১৭
Risingbd
শোকাবহ অগাস্ট
সর্বশেষ:

সাঙ্গাকারা বলত,‘গুড শট, ভেরি গুড শট, ক্যারি অন’

ইয়াসিন : রাইজিংবিডি ডট কম
প্রকাশ: ২০১৬-১১-০৯ ৯:২৭:০০ এএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৪-১০ ১০:২৫:০২ এএম

ইয়াসিন হাসান: বাংলাদেশের ক্রিকেটে মেহেদী মারুফ অপরিচিত কোনো নাম নয়। সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবালদের সঙ্গেই যুব ক্রিকেট খেলেছেন মেহেদী মারুফ।

সাকিব, তামিম জাতীয় দলে খেলে আজ তারকা। পিছিয়ে পড়ে আছেন মেহেদী মারুফ। তবে ঘরোয়া লিগে নিয়মিতই ভালো খেলে যাচ্ছেন। কিন্তু অনেকটাই লাইমলাইটের বাইরে টাঙাঈলের এ ক্রিকেটার।

মঙ্গলবার ঢাকা ডায়নামাইটসের জার্সিতে অসাধারণ ইনিংস খেলে সবার নজর কেড়েছেন মেহেদী মারুফ। মিরপুর শের-ই-বাংলা ব্যাট হাতে ৪৫ বলে ৫ চার ও ৫ ছক্কায় ৭৫ রান করেন ২৮ বছর বয়সি এ ক্রিকেটার। দারুণ জয় উপহার দেওয়ায় ম্যাচসেরার ও নির্বাচিত হন মেহেদী। দিন শেষে সংবাদ সম্মেলনে মেহেদী মারুফ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কথা বলেন।

রাইজিংবিডির পাঠকদের জন্য চুম্বক অংশ দেওয়া হল:

প্রশ্ন: আজকের ইনিংসটিকে কিভাবে ব্যাখ্যা করবেন?
মেহেদী মারুফ: টি-টোয়েন্টি মানেই ইতিবাচক থাকা, নিজের শটস খেলা। আজকে আমার দিন ছিল, ব্যাট হাসছে। এইতো…

প্রশ্ন: এরকম ইনিংস এর আগে খেলেছেন?
মেহেদী মারুফ: হ্যাঁ, এরকম ইনিংস অনেক খেলেছি। টি-টোয়েন্টিতে গতবারই ঢাকার সঙ্গে এরকম একটি ইনিংস খেলেছিলাম। সেটাতে আমরা ম্যাচ জিতেছিলাম। শেষ খেলেছি ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে আবাহনীর বিপক্ষে। দুটোই একই ধরণের ইনিংস ছিল। (ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে আবাহনীর বিপক্ষে ৬৯ এবং বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে ঢাকা ডায়নামাইটসের বিপক্ষে ৩৭)।

প্রশ্ন: ৫টি চারের সঙ্গে তাল মিলিয়ে ৫টি ছয়ও হাঁকিয়েছেন…
মেহেদী মারুফ: আমি ছয় মারতে বেশি পছন্দ করি। টি-টোয়েন্টিতে এটার সুযোগ বেশি থাকে। দুটা মিলিয়ে আজকে হল।

প্রশ্ন: ছয় গুলো অনেক বড় মেরেছেন?
মেহেদী মারুফ:
বড় বড় ছয় মারার জন্য টাইমিংটার দরকার পড়ে। আজকে টাইমিংটা ভালো ছিল।

 

 

প্রশ্ন: আল-আমিনের উপর রাগ ছিল? প্রথম দুটি ছয় বেশ বড় মেরেছিলেন। একটি তো গ্যালারিতে?
মেহেদী মারুফ:
আল-আমিন! না রাগের কোনো কিছু ঘটেনি।

প্রশ্ন: আপনার শুরুটা সব সময়ই দারুণ হয়। কিন্তু মাঝপথে এসে পথ হারিয়ে ফেলেন। ভুল শট খেলে আউট হয়ে যান। আজকে পুরোটাই খেলতে পারলেন..
মেহেদী মারুফ:
এইতো বড় বড় খেলোয়াড় আমাদের দলে খেলতে এসেছেন। ওদের কাছ থেকে শেখা। দেখে দেখে শিখতে পারছি মনে হচ্ছে উন্নতি হচ্ছে। ওদের সঙ্গে কথা বললে অনেক কিছু শেখা যায়। ওগুলো বাস্তবায়ন করতে পারাই আজকের ইনিংসের উদাহরণ।

প্রশ্ন: কুমার সাঙ্গাকারা কি বলেছিলেন ব্যাটিংয়ের সময়?
মেহেদী মারুফ: সাঙ্গাকারা কিছুই বলে না। বলে ‘গুড শট, ভেরি গুড শট, ক্যারি অন।’ তবে ও (সাঙ্গা) বোলারদের ভালো পিক করে বুঝিয়ে দেয়। বলেছিল,‘এ বোলাররা এটা করছে, ওটা করছে। তুমি একে একটু দেখে নিও, এটা করলে ওটা হবে। এরকম বুঝিয়ে দিয়েছে।’

 

 

প্রশ্ন: দলে অনেক বড় নাম। তাদের ভিড়ে হারিয়ে যাওয়ার ভয় ছিল? আরেকটি জিনিস একাদশে সুযোগ পাওয়ার ভয় ছিল?
মেহেদী মারুফ: এরকম একটা বিষয় ছিল। তবে সুজন ভাইয়ের সঙ্গে কথা বলার পর মনে হয়েছে সুযোগ প্রথম থেকেই পাব। সুজন ভাইয়ের মত কোচ পাওয়া আমার জন্য ভাগ্যের বিষয়। খুব স্বাভাবিকভাবে, বন্ধুর মত করে, আরামে আমাকে অনেক কিছু বুঝিয়ে দিয়েছেন।

প্রশ্ন: দলে খুব বড় বড় নাম। এবার চ্যাম্পিয়নশিপের জন্যই লড়ছেন নিশ্চই?
মেহেদী মারুফ: আমরা চ্যাম্পিয়নশিপের লক্ষ্য নিয়েই এগিয়ে যাচ্ছি। কুমার সাঙ্গাকারা, মাহেলা জয়াবর্ধনে, ডোয়াইন ব্রাভো, আন্দ্রে রাসেলের মত বিশ্বমানের খেলোয়াড় আছে আমাদের দলে। এদের থেকে সেরা কোনো সংগ্রহ এবারের বিপিএলের কোনো দলের নেই। আমাদের ঘরোয়া ক্রিকেটে মোসাদ্দেক হোসেন, নাসির হোসেন ও সাকিব আল হাসান আছে এ দলে। এরা বাংলাদেশের সেরা। দুটার সেরা মিলিয়ে যদি চ্যাম্পিয়ন হতে না পারি তাহলে আমাদের জন্য খুব দূর্ভাগ্য হবে। আমরা এটা নিয়ে খুব উদ্বিগ্ন। আমরা এবার শিরোপা চাই।

প্রশ্ন: সেরা শট কোনটি ছিল আজ?
মেহেদী মারুফ: মেহেদী হাসানের বলে খুব সাধারণ একটি ব্যাকফুট কাভার ড্রাইভ করেছিলাম। চার হয়েছিল ওটা। সেটা আমার কাছে সেরা শট।

প্রশ্ন: ছোট লক্ষ্য নিয়েও আক্রমণাত্মক ব্যাটিং করলেন? পরিকল্পনা কি ছিল?
মেহেদী মারুফ: হ্যাঁ সুজন ভাই আগেই বলে দিয়েছিলেন নিজের খেলা খেলবি, সেরা ক্রিকেট খেলবি। প্রথম বলে আউট হলেও উনি মন খারাপ করতেন না। বলেছিলেন আমার নিজের মত করে খেলতে। এটাই বাস্তবায়ন করেছি।




রাইজিংবিডি/ঢাকা/৮ নভেম্বর ২০১৬/ইয়াসিন/শামীম

Walton Laptop