ঢাকা, শুক্রবার, ১৩ বৈশাখ ১৪২৬, ২৬ এপ্রিল ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

প্রতিদিন বরগুনায় ‘ক্লাব ডি রানার্স’

খায়রুল বাশার আশিক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৮-১২-৩১ ৩:১৬:৩৬ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-১২-৩১ ১০:৫৭:০৫ পিএম

খায়রুল বাশার আশিক : তারা দৌড়াচ্ছেন, ভালো থাকার জন্য দৌড়াচ্ছেন। তারা জানেন শরীরের সঙ্গে মন ভালো রাখা গেলে মানুষের জীবন সুখের সান্নিধ্য পায়। সে কারণেই ভোরের আলো ফুটতে না ফুটতেই এই দৌড় বা ব্যায়াম।

জনস্বাস্থ্যের কথা চিন্তা করে সকল বয়সের মানুষকে ব্যায়ামের সুযোগ তৈরি করে দেয়ার পাশাপাশি ব্যায়াম সচেতন ভবিষ্যৎ প্রজন্ম সৃষ্টির লক্ষ্যে উপকূলীয় জেলা বরগুনায় গত ২ বছর আগে গড়ে তোলা হয়েছে ‘ক্লাব ডি রানার্স’। ব্যস্ত জীবনের হাজারো সমস্যার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে যখন স্বাস্থ্যগত হতাশায় ভুগছেন অধিকাংশ মানুষ, ঠিক তখন স্বাস্থ্যের প্রতি গুরুত্ব বিবেচনায় ‘ক্লাব ডি রানার্স’ বরগুনায় সৃষ্টি করেছে অপূর্ব উদাহরণ। প্রতিদিন সকালে নানা বয়সী শত মানুষ শরীরচর্চার মাধ্যমে সেবা নিচ্ছে এখানে। শিশু, তরুণ, যুবক ও বয়োজ্যেষ্ঠ প্রবীণ সবাই মিলে একই সঙ্গে শরীরচর্চায় ব্যস্ত। কখনো সবাই দৌড়াচ্ছে, কখনো উঠ-বস করছে, কখনোবা করছে নানা ধরনের কসরত। সমান তালের দেহভঙ্গির সঙ্গে জগিং বা বিভিন্ন ধরনের ব্যায়ামে মনোযোগী সবাই। বরগুনা সদরের প্রাণকেদ্র সার্কিট হাউজ মাঠে প্রতিদিন সকালবেলা দেখা যায় ‘ক্লাব ডি রানার্স’ এর সদস্যদের শরীরচর্চার এমন দৃশ্য।

 



গত দুই বছর প্রতিদিন সকাল ৬.২০ মিনিটে শুরু হয় এই ব্যায়ামের আসর। প্রতিদিন কম করে হলেও ১ ঘণ্টা কসরতে বলে দেয়া হয় কোন ব্যায়ামের কি উপকারিতা। কোন ব্যায়াম মেরুদণ্ড ভালো রাখে, কোন ব্যায়াম মেদ-ভুঁড়ি কমায়, কোন ব্যায়াম শরীরের পেশী মজবুত করে, কোন ব্যায়াম ঘাড়-পিঠ ও কোমরের ব্যথা দূর করে ইত্যাদি। ইতিমধ্যেই সংগঠনটি তাদের প্রতিষ্ঠার দুই বছর পূর্তি পালন করেছে। সূত্র বলছে, জেলা প্রশাসনের পৃষ্ঠপোষকতায় ও তৎকালীন বরগুনার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক, শিক্ষা ও আইসিটি) ও সংগঠনের উপদেষ্টা মো. নুরুজ্জামানের প্রত্যক্ষ সহযোগিতায় ২০১৬ সালে ১৫ ডিসেম্বর প্রতিষ্ঠিত হয় ‘ক্লাব ডি রানার্স’। দু’বছরের ক্রান্তিকালে এবং তিন বছরের শুভ সূচনার এই সময়টিতে ক্লাবটি ভরসার জায়গা হয়ে উঠেছে শতাধিক মানুষের কাছে। ইতিমধ্যেই ক্লাবটির সদস্যা সংখ্যা দুই শতাধিক ছাড়িয়েছে।

এটি সেবাধর্মী অলাভজনক প্রতিষ্ঠান। শরীরচর্চার দিকনির্দেশনা দেবার পাশাপাশি সংগঠনটি নানা সামাজিক সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডে অংশগ্রহণ করে থাকে। মহান বিজয় দিবস, পয়লা বৈশাখসহ নানা দেশজ আয়োজনে সচেতনতামূলক ক্যাম্পেইন নিয়ে ‘ক্লাব ডি রানার্স’ প্রতিনিয়ত এগিয়ে আসছে। এছাড়াও প্রশাসনিক কর্মকর্তা, চিকিৎসক, শিক্ষক, জনপ্রতিনিধি, সাংবাদিক থেকে শুরু করে নানা শ্রেনী পেশার ধনী গরিবের সেতুবন্ধন সৃষ্টি হয়েছে এর মাধ্যমে। ক্লাবের কার্যক্রম ও একসঙ্গে ব্যায়ামের সুযোগের ফলে সরকারি কর্মকর্তাদের সঙ্গে প্রান্তিক পর্যায়ের মানুষের যোগাযোগ ও সৌহার্দ বৃদ্ধি পেয়েছে শতগুণ। যেকোনো সমস্যা ও সম্ভাবনা সংশ্লিষ্ট জনকে জানানো বা সরাসরি কথা বলতে পারার প্ল্যাটফর্ম হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে এটি।

 



শুধু বয়োজ্যেষ্ঠ লোকজনই নয়, শিশুরাও পাচ্ছে ব্যায়াম করার দারুণ পরিবেশ। বাবার সঙ্গে ব্যায়াম সঙ্গী হয়ে শিশুরাও আসছে প্রতিদিন ব্যায়াম করতে। এতে এসব শিশুদের শরীর গঠনসহ মানসিক ও বুদ্ধিবৃত্তিক শক্তি বৃদ্ধি পাচ্ছে। বিষয়টি নিয়ে কথা হয় ক্লাব ডি রানার্স-এর উপদেষ্টা আবুল কালাম আজাদের সঙ্গে। তিনি বলেন, ‘ক্লাব ডি রানার্স’ মানুষের স্বাস্থ্যগত সুস্থতার পাশাপাশি অসুস্থতা নিরসনের লক্ষে যে কাজ করে যাচ্ছে তা সমাজের জন্য একটি উদাহরণ। বরগুনার শহরের পার্শ্ববর্তী দূর-দূরান্ত এলাকার মানুষ সকাল হতেই এখন উপস্থিত হচ্ছে ব্যায়াম করার ইচ্ছায়। এ ধারা পরবর্তী তরুণ প্রজন্মের মাঝেও অব্যহত থাকবে বলে আমরা আশা রাখি।’

ক্লাব ডি রানার্স-এর আরেক উপদেষ্টা ও বরগুনার জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক জাকির হোসেন মিরাজ জানান, ‘ক্লাব ডি রানার্স যে লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যকে ঘিরে গড়ে তোলা হয়েছিল তা অনেক ক্ষেত্রে সার্থক। এর মাধ্যমে শরীরচর্চাকেন্দ্রিক যে কমিউনিটি সৃষ্টি করেছে তা সমাজ সচেতনতা সৃষ্টিতে প্রত্যক্ষ ভূমিকা রাখবে বলে আমি আশা করি।’



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৩১ ডিসেম্বর ২০১৮/ফিরোজ

Walton Laptop
     
Walton AC
Marcel Fridge