ঢাকা, রবিবার, ১০ আষাঢ় ১৪২৫, ২৪ জুন ২০১৮
Risingbd
সর্বশেষ:

এবারের বইমেলায় রেকর্ড সংখ্যক বই প্রকাশ

অহ নওরোজ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৮-০৩-০১ ১২:০৯:৪৩ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০৩-০১ ১২:১০:০২ পিএম

সাংস্কৃতিক প্রতিবেদক : সদ্য শেষ হওয়া অমর একুশে গ্রন্থমেলার এবারের আসরে প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা ভেঙে দিয়েছে গতবারের রেকর্ড। গতবারের বইমেলার প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা ৩ হাজার ৬৬৬টি। আর এবারে সব মিলিয়ে প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা ৪ হাজার ৫৯১টি।

বাংলা একাডেমির দেওয়া তথ্য অনুসারে এবারের বইমেলায় প্রকাশিত ৪ হাজার ৫৯১টি নতুন বইয়ের মধ্যে, গল্পগ্রন্থ ৭০১টি, উপন্যাস ৬৪৩টি, প্রবন্ধগ্রন্থ ২৫৭টি, কাব্যগ্রন্থ ১ হাজার ৪৫২টি, গবেষণামূলক গ্রন্থ ১২২টি, ছড়াগ্রন্থ ১১২টি, শিশুতোষ বই ১২৫টি, জীবনীমূলক গ্রন্থ ১০৭টি। এ ছাড়া রচনাবলী ১৫টি, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক গ্রন্থ ৯১টি, নাটক গ্রন্থ ২৩টি, বিজ্ঞানবিষয়ক গ্রন্থ ৭৬টি, ভ্রমণ কাহিনি ৯১টি, ইতিহাসবিষয়ক গ্রন্থ ১১০টি, রাজনীতিবিষয়ক গ্রন্থ ২২টি, চিকিৎসাবিষয়ক গ্রন্থ ৩৩টি, রম্য গ্রন্থ ২১টি, ধর্মবিষয়ক গ্রন্থ ২৬টি, অনুবাদ গ্রন্থ ৪৮টি, অভিধান ৭টি, সায়েন্স ফিকশন বিষয়ক গ্রন্থ ৬৫টি এবং অন্যান্য বিষয়ে ৪৪৪টি গ্রন্থ প্রকাশিত হয়েছে।

গতকাল সমাপনী অনুষ্ঠানে বইমেলার সদস্য সচিব ড. জালাল আহমেদ বলেন, এবারে প্রকাশিত বইয়ের  সংখ্যা আরো বেশি ছিল। কারণ অনেক প্রকাশনা সংস্থা তাদের নতুন বইয়ের তালিকা বার বার তাগিদ দেওয়ার পরও একাডেমির তথ্য কেন্দ্রে জমা দেন না। ফলে একাডেমির তথ্যকেন্দ্রে যেসব বইয়ের তালিকা জমা পড়েছে সেই তথ্যই আমরা মিডিয়াকে জানিয়ে দিচ্ছি।

এবারের বইমেলায় বিক্রি সম্পর্কে তিনি জানান, ২৭ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বাংলা একাডেমি ১ কোটি ৫১ লাখ ২৪ হাজার টাকার বই বিক্রি করেছে।

গতবারের তুলনায় এবারের বইমেলায় বিক্রিও হয়েছে বেশি। এবারের বইমেলায় গতবারের তুলনায় স্টলের সংখ্যাও বেশি ছিল। এবার স্টল ছিল ৭১৯টি। এ ছাড়া প্যাভিলিয়ন ছিল ২৪টি। গত বছর স্টল ছিল ৬৭৭টি। গত বছরের চেয়ে এবার মেলার পরিসরও বড় ছিল। এবারের বইমেলা হয়েছে দেড় লাখ বর্গফুট এলাকায়। ঐতিহ্যবাহী এই অমর একুশে গ্রন্থমেলার সঙ্গে এবারেই প্রথম যুক্ত করা হয়েছিল সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের স্বাধীনতা স্তম্ভকে। এর সঙ্গে সময় বাড়ানো হয়েছিল ৩০ মিনিট।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১ মার্চ ২০১৮/অহ/এসএন

Walton Laptop
 
   
Walton AC