ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ চৈত্র ১৪২৩, ২৩ মার্চ ২০১৭
Risingbd
মার্চ
সর্বশেষ:

অদ্ভুত ১০ ভয়

স্বপ্নীল মাহফুজ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০১-২২ ৮:০৭:১৬ এএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০১-২২ ৬:৩১:৫৪ পিএম
হিপনোফোবিয়ার প্রতীকী ছবি

স্বপ্নীল মাহফুজ :  ফোবিয়া বা অস্বাভাবিক ভীতি- অনেকেরই অনেক বিষয়ে রয়েছে। কিন্তু কখনো কখনো এই ফোবিয়া মানুষের দৈনন্দিন জীবনকে ব্যাপকভাবে প্রভাবিত করতে পারে। আজ আপনাদের অদ্ভুত ১০টি ফোবিয়ার কথা জানাবো।

ক্রোমাটোফোবিয়া- রঙ ভীতি
ক্রোমাটোফোবিয়ায় আক্রান্তদের জন্য পৃথিবী একটি ভয়ংকর জায়গা। তারা রঙিন বস্তু দেখলেই ভীত সন্ত্রস্ত হয়ে পড়ে। তাহলে একবার ভাবুন রংধনু দেখলে তাদের অবস্থা কেমন হবে। রংধনু যেন তাদের জন্য এক দুঃস্বপ্ন। এই ভীতি অবচেতন মন দ্বারা সৃষ্টি হয় এবং অধিকাংশ ক্ষেত্রে নেপথ্যে একটি আঘাতের ঘটনা থাকে, যার সঙ্গে একটি নির্দিষ্ট রঙ কোনোভাবে জড়িত ছিল।

হিপনোফোবিয়া- ঘুমিয়ে পড়ার ভীতি
এই ফোবিয়ায় আক্রান্তরা ‘যদি ঘুমিয়ে পড়ি’ এমন চিন্তায় অস্থির থাকেন। তারা ঘুমকে খুব বেশি মাত্রায় ভয় পান। ঘুমের মধ্যে ভয়ংকর কোনো ঘটনার শিকার হওয়ার কারণেই এমনটা হয়ে থাকে।

ক্লাস্টোফোবিয়া- বদ্ধ স্থানে ভীতি
বদ্ধ স্থানের প্রতি ভীতি বা আতঙ্ককে বলা হয় ক্লাস্টোফোবিয়া। অনেকেই লিফটে উঠতে ভয় পান এই মানসিক ব্যাধির কারণে। এক জরিপে দেখা গিয়েছে, পৃথিবীর ৫-৭ শতাংশ লোকই এই মানসিক ব্যাধিতে আক্রান্ত, কিন্তু খুব কম সংখ্যক লোকই উপযুক্ত চিকিৎসা পেয়ে থাকেন। খনিশ্রমিকরা অনেকেই এই ভীতির স্বীকার হন।

অ্যাক্রোফোবিয়া- উচ্চতা ভীতি
অনেকে আছেন, পাহাড়ে উঠতে বা উচুঁ স্থানে উঠতে ভয় পান, উচ্চতা ভীতিকে বলে অ্যাক্রোফোবিয়া। অ্যাক্রো শব্দটি এসেছে গ্রিক অ্যাক্রোন থেকে, এর অর্থ শীর্ষ স্থান। এই ফোবিয়ায় আক্রান্তদের উঁচু স্থান এড়িয়ে চলাই ভালো।

নিউমিরোফোবিয়া- সংখ্যা ভীতি
অনেকেই তাদের জীবনে কোনো কোনো সংখ্যাকে তাদের দুর্ভাগ্যর কারণ হিসেবে দেখেন। আর এমন হতে হতে একসময় এটা ভীতির কারণ হয়। যেমন -১৩, ৬৬৬ ইত্যাদি। তারা সবসময় তাদের নিজ নিজ ভীতিকর সংখ্যা থেকে এড়িয়ে চলতেই পছন্দ করেন।

অ্যাম্বুলোফোবিয়া- হাঁটায় ভীতি
অনেককেই দেখবেন কোথাও ঘুরতে গিয়েছে, কিন্তু সেখানে কিছু দূর হাঁটতে হবে এমন কথা শুনেই অস্থির হয়ে পড়েন। বলেন, কিভাবে হাঁটবো! ওরে বাবা! তারা আসলে অ্যাম্বুলোফোবিয়ায় আক্রান্ত।

 

হিপ্পোপ্তমনস্ট্রসেস্কোইপেডালিওফোবিয়া- দীর্ঘ উচ্চারণে ভীতি
আমাদের চলার পথে অনেক সময় চোখের সামনে দীর্ঘ শব্দ আসে। এমন দীর্ঘ শব্দ উচ্চারণে অনেকেরই ভীতি আছে। তারা যত সম্ভব এগুলো এড়িয়ে চলেন। আর এই ভীতিই হল, হিপ্পোপ্তমনস্ট্রসেস্কোইপেডালিওফোবিয়া।

এটিচিফোবিয়া- অকৃতকার্য হওয়ার ভয়
এই ফোবিয়ায় আক্রান্ত লোকেরা যেকোনো পরীক্ষায় কিংবা কাজে অকৃতকার্য হওয়ার ভয়ে সবসময় ভীত থাকেন। তাদের এই ভীতি যখন প্রবল হয় তখন যেকোনো কাজ করতেই ভয় পান এই ভেবে যে, যদি না পারি।

এরেখনোফোবিয়া মাকড়শার ভয়
এই ফোবিয়ায় আক্রান্ত লোকেরা মাকড়শা দেখলেই ভীত সন্ত্রস্ত হয়ে পড়েন। এটার মাত্রা যখন বাড়তে থাকে তখন তারা মাকড়শার নাম শুনলেও ভয় পায়। বিশেষ করে নারীদের এমনটা বেশি হয়ে থাকে।

এজিরোফোবিয়া- রাস্তা পারাপারের ভয়
এই ফোবিয়ায় আক্রান্ত লোকেরা রাস্তা পারাপারে ভয় পান। হয়তো আপন কোনো লোক অথবা চোখের সামনে রাস্তা পারাপারে কোনো দুর্ঘটনার শিকার হতে দেখে এমন ভীতি তৈরি হয়ে থাকে।

 

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/২২ জানুয়ারি ২০১৭/ফিরোজ

Walton Laptop