ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৪, ২৩ নভেম্বর ২০১৭
Risingbd
সর্বশেষ:

শরীর ও মনের চাপ কমাতে প্রাণায়াম

ফজলে আজিম : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০৭-০৩ ৮:০৩:২৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৭-০৩ ৮:০৩:২৭ পিএম
প্রতীকী ছবি

ফজলে আজিম : প্রাণায়ামের মাধ্যমে শরীর দূষিত পদার্থ থেকে মুক্ত হয়, বাড়ে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা। এছাড়া মন প্রশান্ত হয়। চেতনা ও অতিচেতনা হয় শাণিত।

আপনি হাঁটতে হাঁটতে প্রাণায়াম করতে পারেন। চেয়ারে বসে কিংবা বিছানায় শুয়েও প্রাণায়াম চর্চা করতে পারেন। যেভাবেই করুন না কেন মেরুদণ্ড যেন সোজা থাকে। চেয়ারে বসে করলে পায়ের নিচে পিড়ি বা উঁচু কিছু দিতে পারেন। চেয়ারে হেলান দেবেন না কিংবা সামনে ঝুঁকে বসবেন না। চলুন শুরু করা যাক।

পূরক/শুদ্ধ : বুক ভরে দম নিন। দম নেওয়ার সময় পেটের নিচের অংশ ফুলবে। দম নেওয়ার সময় মনে মনে ১-২-৩-৪-৫ গুণতে পারেন। অনুভব করুন আপনার শরীরের কোষে কোষে অক্সিজেনের সরবরাহ বাড়ছে। আপনি সতেজ ও প্রাণবন্ত হয়ে উঠছেন। ফুসফুস, পেট ও মস্তিষ্কের বিভিন্ন অংশে আগের চেয়ে বেশি পরিমাণে অক্সিজেন সরবরাহ হচ্ছে। এসব জায়গায় কোনো সমস্যা থাকলে তা নিরাময় হচ্ছে। এ সময় সক্রিয়ভাবে শরীর অক্সিজেনের প্রাণপ্রবাহে সতেজ ও চাঙ্গা হয়ে উঠবে।

কুম্ভক/রুদ্ধ : এবার কিছু সময় দম ধরে রাখুন। দম যাতে বেরিয়ে যেতে না পারে সেজন্যে কিছুক্ষণ দম রুদ্ধ করে রাখুন। এ সময় মনে মনে ১-২-৩-৪-৫ গুণতে পারেন। কুম্ভক বা রুদ্ধ প্রক্রিয়ায় শরীর বাড়তি অক্সিজেন সঞ্চয় করতে পারে। শরীরের প্রতিটি কোষ আটকে থাকা দম থেকে কিছুটা শোষণ করে নেয়। যেটা স্বাভাবিক দম প্রক্রিয়ায় সম্ভব হয় না।

রেচক/মুক্ত : এবার দম ছেড়ে দিন। দম নেওয়ার চেয়ে দম ছাড়তে একটু বেশি সময় দিন। এ সময় মনে মনে ১-২-৩-৪-৫-৬-৭ গুণতে পারেন। অনুভব করুন আপনার শরীর থেকে কার্বন-ডাই-অক্সাইড বেরিয়ে যাচ্ছে। শরীর দূষিত পদার্থ থেকে মুক্ত হচ্ছে। বিভিন্ন ধরনের মনোদৈহিক সমস্যা থেকে আপনি মুক্ত হচ্ছেন। ধীরে ধীরে দম ছাড়ার ফলে আপনার শরীর শিথিল হয়ে উঠবে। আর আপনি জানেন মানসিক স্থিরতা হচ্ছে শারীরিক সুস্থতা ও মানসিক উৎফুল্লতার জন্য সবচেয়ে বেশি দরকারি।

নিয়মিত এ প্রক্রিয়া অনুসরণের মাধ্যমে আপনি আগের চেয়ে শান্ত ও ধীরস্থির হয়ে উঠবেন। মন ও মস্তিষ্ক আগের চেয়ে বেশি সক্রিয় ও কর্মক্ষম হয়ে উঠবে। আর স্ট্রেস মুক্ত হয়ে অল্প সময়ে করতে পারবেন অনেক কাজ।

লেখক : সাইকিক কনসালটেন্ট এবং ইয়োগা ও বজ্রপ্রাণ প্রশিক্ষক, বাংলাদেশ ব্যুত্থান ফেডারেশন।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৩ জুলাই ২০১৭/ফিরোজ

Walton
 
   
Marcel