ঢাকা, বুধবার, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ২১ নভেম্বর ২০১৮
Risingbd
সর্বশেষ:

১২ রাশির খাদ্যাভ্যাস যেমন হওয়া উচিত

আহমেদ শরীফ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-১০-২৯ ৯:২২:৫৬ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-১০-২৯ ৯:২২:৫৬ পিএম

আহমেদ শরীফ : ১২ রাশির ১২ রকম মানুষ। তবে বেশিরভাগ মানুষই রাশি নিয়ে ভাবেন না বেশি। অবশ্য প্রতিদিন পত্রিকা বা অনলাইনে রাশিফল দেখার অদ্ভুত মোহ আছে অনেক মানুষের। কেউ কেউ আবার রাশিফল মেনেই চলেন। তো আমরা জোর গলায় না মানলেও মনের গভীরে অনেকেই লালন করি রাশির মিল-অমিল। কোন কোন রাশির মানুষ কেমন খেতে পছন্দ করেন তা জেনে নেই চলুন।

মেষ : মেষ রাশির জাতক-জাতিকারা খুব দ্রুতই খাওয়ার কাজটা সারেন। স্পাইসি, গরম খাবারের প্রতি তাদের দুর্বলতা আছে। তবে নিজেদের সুস্থ রাখতে ও বিভিন্ন রোগ থেকে দূরে থাকতে তাদের উচিত ধীরে খাওয়া ও পরিচ্ছন্ন খাবার খাওয়া।

বৃষ : গোগ্রাসে খাওয়ার প্রবণতা আছে বৃষ জাতক-জাতিকাদের। মিষ্টি, পাউরুটি, পাস্তা এসব বেশি পছন্দ করেন। এসব খাবার তাদের জন্য ক্ষতিকর। এছাড়া বেশি খাওয়ার প্রবণতা না কমালে তাদের ওজন বেড়ে যাওয়ার হুমকি থাকে।

মিথুন : বেশি খাওয়ার চেয়ে বরং খাওয়ার পাশে কোনো সঙ্গীর সঙ্গে কথা বলতে বলতে খাওয়ার প্রবণতা থাকে এই রাশির মানুষদের। তবে খাদ্য রসিক না হলেও তাদের ঘরের কিচেনে বিভিন্ন ধরনের খাবারের কিন্তু কমতি থাকে না। তারা একই ধরনের খাবার খেতে পছন্দ করেন না।

কর্কট :  খাদ্য বিশেষজ্ঞ বলা যায় এই রাশির জাতক-জাতিকাদের। এরা সাধারণত ব্যয়বহুল ও কোয়ালিটি খাবার কিনতে পছন্দ করেন। খেতেও খুব পছন্দ করেন তারা। বিশেষ করে নার্ভাস হলে বা ভয় পেলে খাওয়ার মাত্রা বেড়ে যায় তাদের। তবে নিজেকে তৃপ্ত করতে অতিরিক্ত খেলে রোগে আক্রান্ত হয়ে পড়তে পারেন তারা।

সিংহ : এই রাশির জাতক-জাতিকারা নিজেরা ভালো রান্না বিশারদ না হলেও খাওয়ার ব্যাপারে কার্পণ্য নেই তাদের। বড় রেস্টুরেন্টে বন্ধুদের সঙ্গে খেতে পছন্দ করেন তারা। তবে তারা যা খান, তাতে পুষ্টিমান খুব একটা ভালো থাকে না। তাই পুষ্টিকর খেতে হলে তাদেরকে বেশি করে ফল ও সবজি খেতে হবে।

কন্যা : সত্যিকারের ডায়েট মূলত এই রাশির লোকেরাই করেন। তারা ডায়েটের ব্যাপারে বেশ সতর্ক। অর্গানিক ফুড পছন্দ তাদের, রান্নাটাও ভালো জানেন। হজম শক্তি একটু দুর্বল, তাই সহজে হজম হয় এমন খাবারই খেতে হয় তাদের।

তুলা : ঠিক খাদ্য রসিক না এরা। মূল খাবারের চেয়ে ডেজার্টের প্রতি লোভ বেশি তাদের। বিভিন্ন ধরনের পানীয়ও পছন্দ করেন। আর আরামদায়ক পরিবেশে খেতে চান। তবে মিষ্টি জাতীয় খাবারের প্রতি লোভ না কমালে শরীরে এর খারাপ প্রভাব পড়তে পারে।

বৃশ্চিক : রাশিগত বৈশিষ্ট্যের মতোই খাদ্যাভাসেও অদ্ভুত কিছু বৈশিষ্ট্য দেখা যায় এ রাশির জাতক-জাতিকাদের। এরা মসলাযুক্ত সহ সব ধরনের খাবারই খেতে পারেন। একবার খেতে বসে অনেক খাবার খেতে পারেন আবার না খেয়ে থাকতে পারেন একটানা ৬ ঘণ্টার মতো। এদের বেশি করে পানি পান করা জরুরি।

ধনু : খাবার নিয়ে এক্সপেরিমেন্ট করতে ভালোবাসেন এরা। একই সময়ে প্রচুর খেয়ে পরে না খেয়ে থাকতে পারেন। অতি খাওয়ার মতো অতি পান করার প্রবণতাও আছে এদের। তাই হজমে গন্ডগোল ও মুটিয়ে যাওয়ার হুমকি থাকে।

মকর : এদের কাছে খাওয়ার স্বাদ ও মানটাই আগে। ঘরে তৈরি খাবারই বেশি পছন্দ তাদের। মসলাদার খাবারের চেয়ে একটু লবণাক্ত খাবার পছন্দ। অতিরিক্ত খেতে পছন্দ করেন না এরা।

কুম্ভ : এরা বেশিরভাগ ক্ষেত্রে সবজি জাতীয় খাবার পছন্দ করেন। শরীর সুস্থ রাখতে বেশি রাতে খাওয়া থেকে দূরে থাকতে হবে তাদের।

মীন : নিজেকে তৃপ্ত করতে খেতে পছন্দ করেন এরা। সুন্দর পরিবেশে খেতে চান। শরীর ঠিক রাখতে এদের বেশ করে পানি পান করা প্রয়োজন।

তথ্যসূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া




রাইজিংবিডি/ঢাকা/২৯ অক্টোবর ২০১৮/ফিরোজ

Walton Laptop
 
     
Marcel
Walton AC