ঢাকা, সোমবার, ৭ ফাল্গুন ১৪২৪, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৮
Risingbd
অমর একুশে
সর্বশেষ:

‘পাওয়ার টিলার আমার জীবন বদলে দিয়েছে’

মামুন চৌধুরী : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০৮-০২ ১১:৩৬:৪৫ এএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৮-১৭ ৪:০৩:০৮ পিএম

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি : হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ ও চুনারুঘাট উপজেলার উবাহাটার আশপাশ এলাকায় জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে ফুরুক মিয়ার ভ্রাম্যমাণ রাইস মিল । মোবাইল ফোনে কল দিলেই ‘রাইস মিল’ নিয়ে বাড়িতে এসে হাজির হচ্ছেন ফুরুক মিয়া।

এতে লোকজন পরিবহনের ঝামেলা এড়িয়ে বাড়িতে বসেই ধান ভাঙ্গাতে পারছেন ।

ফুরুক মিয়ার ভ্রাম্যমাণ রাইস মিলের কারণে একদিকে যেমন চাষিরা উপকৃত হচ্ছেন, অন্যদিকে তিনি ভাল আয় করে নিজ সংসারের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি হয়ে উঠতে পেরেছেন।বেকারত্ব নিয়ে এখন আর কোন কথা শুনতে হয়না তাকে। বরং অনেকেই এগিয়ে এসে তার কাজের প্রশংসা করেন।

ফুরুক মিয়া পাওয়ার টিলারে কেবল যে ধান ভাঙ্গানোর কাজই করেন তা নয়, তিনি এই একই মেশিন দিয়ে জমি চাষেরও কাজ করছেন। তাই মোটেই ফুসরত নেই ফুরুক মিয়ার। কখনো জমিতে চাষ, কখনো ধান ভাঙানো- দিনরাত ব্যস্ত দিন কাটে তার।

চুনারুঘাটের উবাহাটা এলাকার বাসিন্দা ফুরুক মিয়া আলাপকালে বলেন, ‘বেকার ছিলাম। এই নিয়ে ঘরে-বাইরে নানা কথা শুনতে হতো। এখন উল্টো প্রশংসা শুনি। এই পাওয়ার টিলার আমার জীবন বদলে দিয়েছে।  শুরুতে এ মেশিন দিয়ে শুধু লোকজনের জমিতে চাষ করেছি। এতে প্রতিদিন তেমন রোজগার হতো না।  পরে ধান ভাঙ্গানোর পদ্ধতি বের করি। সেই থেকে এক মেশিনে দুই ধরণের কাজ করতে পারছি। এতে খরচ বাদে দৈনিক প্রায়  হাজার টাকা আয় হচ্ছে। ভালই দিন চলে যাচ্ছে আমার।’

 

 

রাইজিংবিডি/হবিগঞ্জ/২ আগস্ট ২০১৭/মামুন চৌধুরী/টিপু

Walton
 
   
Marcel