ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮
Risingbd
সর্বশেষ:

ঈশ্বরদী-পাবনা পরীক্ষামূলক ট্রেন চলাচল শুরু

শাহীন রহমান : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৭-১২-১৪ ৯:৪৫:৪০ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-১২-১৪ ৯:৫৭:০৯ পিএম

পাবনা প্রতিনিধি : নির্মাণাধীন পাবনা-ঈশ্বরদী রেলপথে পরীক্ষামূলক ট্রেন চলাচল শুরু হয়েছে। এ নিয়ে উচ্ছ্বসিত পাবনার মানুষ।

বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় ঈশ্বরদী স্টেশন থেকে ছেড়ে আসা পরীক্ষামূলক ট্রেন বেলা পৌনে ১১টায় পাবনা স্টেশনে পৌঁছায়। এ সময় জেলা প্রশাসক রেখা রাণী বালো ট্রেনে আসা রেল কর্মকর্তাদের স্বাগত জানান।

রেল কর্মকর্তারা জানান, ঘণ্টায় ৯৬ কিলোমিটার গতিতে ঈশ্বরদী থেকে পাবনা আসতে সময় লেগেছে ৪০ মিনিটের কিছু বেশি। ট্রেন পাবনার বাইপাসে এসে পৌঁছার পর সাধারণ মানুষের উচ্ছ্বাসে আনন্দমুখর পরিবেশের সৃষ্টি হয়। পাবনাবাসীর দীর্ঘ দিনের স্বপ্ন ছিল- এই এলাকা দিয়ে ট্রেন চলবে। তাই মানুষের উপস্থিতি ছিল লক্ষ্যণীয়।

মাজগ্রাম-ঢালারচর রেলপথ প্রকল্পের পরিচালক সুবক্তগীন জানান, ঈশ্বরদীর মাজগ্রাম থেকে পাবনা হয়ে ঢালারচর পর্যন্ত ৭৮ দশমিক ৮ কিলোমিটার রেলপথ প্রকল্পের প্রথম পর্যায়ের কাজ শেষ হয়েছে। প্রথম পর্যায়ে পাবনা থেকে ঈশ্বরদী পর্যন্ত ২৫ কিলোমিটার রেলপথ নির্মাণ ও আনুষঙ্গিক কাজ শেষে পরীক্ষামূলক ট্রেন চলাচল শুরু হয়েছে। আগামী জানুয়ারি মাসে পাবনা-ঈশ্বরদী রুটে আনুষ্ঠানিকভাবে ট্রেন চলাচল শুরু হবে।

২০০৮ সালের জাতীয় নির্বাচনের আগে পাবনা শহরের টাউন হল মুক্তমঞ্চ মাঠে এক ভিডিও কনফারেন্সে আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনা পাবনার মানুষকে প্রতিশ্রুতি দেন, আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করলে রেল লাইন নির্মাণ করা হবে। ২০১০ সালে আওয়ামী লীগ সরকার এই রেলপথ নির্মাণের সিদ্ধান্ত নে। এ সময় নকশার কিছুটা পরিবর্তন এনে রেলপথ ঈশ্বরদী থেকে পাবনা হয়ে বেড়া উপজেলার ঢালারচর পর্যন্ত নির্মাণ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

২০১০ সালের ৫ অক্টোবর জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নিবার্হী কমিটির (একনেক) বৈঠকে এই রেলপথ নির্মাণ প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য ৯৮২ কোটি ৮৬ লাখ ৫৬ হাজার টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়। পরবর্তীতে তা বৃদ্ধি পেয়ে দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৬২৯ কোটি টাকা। ২০১৩ সালে ২ ফেব্রুয়ারি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রেলপথ নির্মাণ প্রকল্প কাজের উদ্বোধন করেন।




রাইজিংবিডি/পাবনা/১৪ ডিসেম্বর ২০১৭/শাহীন রহমান/বকুল

Walton Laptop
 
     
Marcel
Walton AC