ঢাকা, শনিবার, ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৪, ২৫ নভেম্বর ২০১৭
Risingbd
সর্বশেষ:

দুর্ঘটনায় আহতদের জরুরি চিকিৎসায় নীতিমালা

মেহেদী হাসান ডালিম : রাইজিংবিডি ডট কম
 
   
প্রকাশ: ২০১৭-০৯-০৭ ১০:০০:৩২ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-১১-০১ ৮:০৭:২১ পিএম

মেহেদী হাসান ডালিম : হাইকোর্টের নির্দেশে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ব্যক্তিকে দ্রুততম সময়ে জরুরি চিকিৎসা প্রদানের মাধ্যমে সম্ভাব্য স্বাস্থ্য ঝুঁকি ও প্রাণহানি হ্রাস করার লক্ষ্যকে সামনে রেখে প্রণয়ন করা হয়েছে জরুরি স্বাস্থ্য সেবা নীতিমালা-২০১৭।

নীতিমালায় বলা হয়েছে, আহত ব্যক্তি সড়ক দুর্ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকলে চিকিৎসা সেবা প্রদানের পূর্বে তাকে কোনোরূপ হয়রানি বা আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের লক্ষে কোনো পুলিশ স্টেশনে প্রেরণ করা যাবে না। কোনো ধরনের আইনি প্রক্রিয়া শুরুর পূর্বে পুলিশ কর্মকর্তা আহত ব্যক্তির চিকিৎসার ব্যবস্থা করবেন। হাসপাতালে স্থানান্তরের ক্ষেত্রে কোনো অ্যাম্বুলেন্স পাওয়া না গেলে আইন প্রয়োগকারী সংস্থা যানবাহনের ব্যবস্থা করবেন।

বিচারপতি সৈয়দ রেফাত আহমেদ ও বিচারপতি মো. সেলিমের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে গত ২৩ আগস্ট এই খসড়া নীতিমালা দাখিল করা হয়। আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে এই নীতিমালা দাখিল করেন সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল মো. জাকির হোসেন রিপন। রিটের পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার সারা হোসেন, ব্যারিস্টার রাশনা ইমাম ও অনিতা গাজী রহমান।

এ বিষয়ে সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল মো. জাকির হোসেন রিপন রাইজিংবিডিকে বলেন, জরুরি স্বাস্থ্য সেবা নীতিমালা আমরা আদালতে দাখিল করেছি। এই নীতিমালা যথাযথ হয়েছে কি না কিংবা এই নীতিমালায় সংযোজন বা বিয়োজন করার কিছু থাকলে রিটকারী পক্ষ তা আদালতকে জানাবেন। অবকাশকালীন ছুটি শেষে সুপ্রিম কোর্ট খোলার পর অক্টোবর মাসে এ বিষয়ে পরবর্তী শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

রিটকারী পক্ষের আইনজীবী ব্যারিস্টার রাশনা ইমাম বলেন, ‘নীতিমালাটি যথাযথ বা সঠিক হয়েছে কি না- এ বিষয়ে আদালত আমাদের জানাতে বলেছেন। এ ছাড়া নীতিমালায় সংযোজন বা বিয়োজন করার কিছু থাকলে আমরা আদালতকে তা অবহিত করবো।’

এর আগে সৈয়দ সাইফুদ্দিন কামাল নামে এক ব্যক্তি হাইকোর্টে রিট করেন। রিটে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ব্যক্তির দ্রুত চিকিৎসা সেবা নিশ্চিতের নির্দেশনা চাওয়া হয়। ওই রিটের পরিপ্রেক্ষিতে গত বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে হাইকোর্ট সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ব্যক্তির জরুরি চিকিৎসা সেবা নিশ্চিতে একটি নীতিমালা প্রণয়নের নির্দেশ দেন।

নীতিমালায় বলা হয়েছে, সড়ক-মহাসড়ক নির্মাণে কারিগরি ত্রুটি, যানবাহন চলাচলে অনিয়ম, চালকের অদক্ষতা, সড়ক মহাসড়কে অবৈধভাবে স্থাপিত হাটবাজার ও স্থাপনা, অবৈধ ও অযান্ত্রিক যানবাহনের উপস্থিতি, জনসচেতনতার অভাবে নগরিকরা প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন। এসব দুর্ঘটনায় আহত ব্যক্তি উপযুক্ত চিকিৎসার অভাবে কর্মক্ষমতা হারিয়ে ফেলছেন। অনেকে বিকলাঙ্গ বা পঙ্গুত্ববরণ করছেন। এ ধরনের ব্যক্তিদের জরুরি চিকিৎসা সেবা প্রদানের লক্ষ্যে এ নীতিমালা করা হয়েছে।

খসড়া নীতিমালায় আরো বলা হয়েছে, আহত ব্যক্তির চিকিৎসা প্রদানে সক্ষমতা সম্পন্ন হাসপাতাল কোনো অবস্থাতেই রোগীর চিকিৎসা প্রদান ব্যতিরেকে ফেরত বা স্থানান্তর করা যাবে না। জরুরি চিকিৎসা সেবা দেওয়ার ক্ষেত্রে কোনো চিকিৎসক বা স্বাস্থ্য সেবা প্রদানকারী ব্যক্তি অবহেলা বা শৈথিল্য প্রদর্শন করলে তা অসদাচরণ হিসেবে বিবেচিত হবে।

এ ছাড়া কোনো হাসপাতাল অবহেলা বা শৈথিল্য প্রদর্শন করলে নিবন্ধন/লাইসেন্স/অনুমতি প্রদানকারী কর্তৃপক্ষ সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় প্রশাসনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারবে। হাসপাতালে আনার পর এ ধরনের আহত ব্যক্তির স্বাস্থ্য সেবা প্রদানের দায়িত্ব হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের ওপর বর্তাবে।

নীতিমালায় বলা হয়েছে, আইনি জটিলতার সম্ভাবনা রয়েছে এমন ক্ষেত্রেও সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত ব্যক্তিকে চিকিৎসা সেবা প্রদানে কোনো ধরনের বিলম্ব করা যাবে না। পাশাপাশি আহত ব্যক্তির আর্থিক সক্ষমতা বিবেচনা না করে তার চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করতে হবে।

আহত ব্যক্তির জীবন রক্ষার্থে দ্রুত নিকটবর্তী  হাতপাতালে প্রেরণ ও তাৎক্ষণিকভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদানের কথা বলা হয়েছে। এ ছাড়া আহত ব্যক্তির জীবন রক্ষার্থে অপারেশনের প্রয়োজন হলে অভিভাবক বা আত্মীয়-স্বজনের অনুমতি ব্যতিরেকে তা করতে চিকিৎসকদের বলা হয়েছে। এ ধরনের অপারেশনে রোগীর জীবনহানি হলে চিকিৎসকের বিরুদ্ধে কোনোরূপ আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা যাবে না বলেও খসড়া নীতমালায় উল্লেখ করা হয়েছে।

নীতিমালায় আরো বলা হয়েছে, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের সড়ক দুর্ঘটনায় আহত ব্যক্তিকে প্রাথমিক চিকিৎসা সেবা প্রদানের বিষয়ে নিয়মিত মহড়া ও প্রশিক্ষণ প্রদান করবে। এ ছাড়া জরুরি বিভাগে দায়িত্বরত সকল চিকিৎসক ও স্বাস্থ্য সেবা প্রদানকারী ব্যক্তির আইনি প্রক্রিয়াসহ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষে নিয়মিত প্রশিক্ষণ প্রদান করতে হবে বলেও খসড়া নীতিমালায় উল্লেখ করা হয়েছে।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৭ সেপ্টেম্বর ২০১৭/মেহেদী/সাইফ

Walton
 
   
Marcel