ঢাকা, বুধবার, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ২১ নভেম্বর ২০১৮
Risingbd
সর্বশেষ:

ফ্রিল্যান্সারদের জন্য ‘ডিজিটাল নিনজা’ নিয়ে এলো গ্রামীণফোন

মনিরুল হক ফিরোজ : রাইজিংবিডি ডট কম
 
     
প্রকাশ: ২০১৮-১১-০৬ ৯:৫২:৫৫ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-১১-০৭ ৮:১৫:৫৪ এএম

বিজ্ঞান-প্রযুক্তি ডেস্ক : আজ রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে এক অনুষ্ঠানে দেশের সবচেয়ে শক্তিশালী নেটওয়ার্ক গ্রামীণফোন ফ্রিল্যান্সারদের জন্য ‘ডিজিটাল নিনজা’ নামক প্ল্যাটফর্মের উদ্বোধন করেছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সরকারের শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব কলসেন্টার অ্যান্ড আউটসোর্সিং’র (বিএসিসিও) প্রেসিডেন্ট ওয়াহিদ শরীফ এবং বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস’র (বেসিস) প্রেসিডেন্ট সৈয়দ আলমাস কবীর। এছাড়াও, অনুষ্ঠানে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, তথ্যপ্রযুক্তিখাত এবং কোডার কমিউনিটি থেকে প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

এ প্লাটফর্মে কোডার ও ডেভেলপাররা ফ্রিল্যান্সার হিসেবে গ্রামীণফোনের বিভিন্ন প্রকল্পে কাজ করার সুযোগ পাবে। অন্যকোথাও চাকরির আবেদনের জন্য পোর্টফোলিও শেয়ারিং-এর প্ল্যাটফর্ম হিসেবেও ডিজিটাল নিনজা প্ল্যাটফর্মটি ব্যবহার করা যাবে।

ডিজিটাল নিনজা পিএইচপি, পাইথন, জাভা ও ডট নেট ডেভেলপার, ইউএক্স ও ইউআই ডিজাইনার, এমএল এক্সপার্ট, কিউএ ইঞ্জিনিয়ার, ফ্রন্ট-এন্ড ডেভেলপার; অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ, আইওএস অ্যাপ ডেভেলপার এবং ডেভঅপস ফ্রিল্যান্সারদের জন্য কাজের সুযোগ সৃষ্টি করবে। হোয়াইট বোর্ডের ওয়েবসাইটের (http://www.white-board.co/digital-ninja/2) মাধ্যমে এ প্ল্যাটফর্মে আবেদন করা যাবে।

এক্ষেত্রে, আবেদনকারীর দক্ষতা, প্রোফাইল ও অভিজ্ঞতার ওপর ভিত্তি করে তিনটি বিভাগে স্কিলসেট শনাক্ত করা হবে। বিভাগগুলো হলো: ইয়েলো, গ্রিন ও ব্ল্যাক বেল্ট। একবার মূল্যায়ন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়ে গেলে আবেদনকারী ডিজিটাল নিনজা কমিউনিটির অংশ হিসবে বিবেচিত হবে।

ডিজিটাল নিনজা প্ল্যাটফর্ম ডেভেলপারদের দ্রুত নিযুক্ত করার মাধ্যমে ফাস্ট-ট্রাক ডেভেলপমেন্টের সুযোগ তৈরি করবে। এ ক্রাউডসোর্সিং প্ল্যাটফর্ম চুক্তির ভিত্তিতে দক্ষদের নিয়োগদানে অত্যন্ত কার্যকরী প্রক্রিয়া হিসেবে কাজ করবে। এ প্ল্যাটফর্ম গ্রামীণফোনকে সুযোগ করে দিবে অনলাইনে তাদের প্রয়োজনীয় স্কিল এক্সপার্টদের নিয়োগ দিতে, যার মাধ্যমে ডিজিটাল এক্সপার্টরা আবেদন করতে সক্ষম হবে। একবার মূল্যায়ন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়ে গেলে দু’ সপ্তাহের মধ্যে ডেভেলপারদের নিয়োগ দেয়া হবে।

এ প্ল্যাটফর্মের কর্মপ্রক্রিয়া খুবই সহজ। এর পেছনে চিন্তা হলো মেধাবী ডেভলপারদের একসঙ্গে নিয়ে আসা, দক্ষতাভিত্তিক ট্যালেন্ট হান্ট করা এবং যেকোনো ব্যবসায়িক প্রয়োজনে ডিজিটাল নিনজাকে কাজে যুক্ত করা।

এ প্ল্যাটফর্মের সম্ভাবনা নিয়ে গ্রামীণফোনের প্রধান নির্বাহী মাইকেল ফোলি বলেন, ‘এদেশের শিল্প, অর্থনীতির ডিজিটালাইজেশন এবং একটি প্রতিযোগিতামূলক ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তোলার ক্ষেত্র সহায়তা করতে এই প্রকল্প শত শত কাজের সুযোগ সৃষ্ট করবে বলে আমরা আশাবাদী।’

প্রতিমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক, গ্রামীণফোনকে ডিজিটাল নিনজা উদ্বোধনের জন্য ধন্যবাদ দেন এবং বাংলাদেশে মানবসম্পদের উন্নয়নের মাধ্যমে বৈশ্বিকভাবে প্রতিযোগিতা করার জন্য গ্রামীণফোনসহ এ ব্যবসা খাতের অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে তার প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন। এছাড়াও, দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে দক্ষ জনশক্তি তৈরিতে নিরলস কাজ করে যাবার ব্যাপারে সরকারের লক্ষ্যের কথাও ব্যক্ত করেন প্রতিমন্ত্রী।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৬ নভেম্বর ২০১৮/ফিরোজ

Walton Laptop
 
     
Marcel
Walton AC