ঢাকা, শুক্রবার, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২২ নভেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

গুজবে যাচ্ছে প্রাণ

আহমদ নূর : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৭-১২ ১০:৫৫:২৯ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৭-১৭ ২:৫০:২৩ পিএম

আহমদ নূর : ব্রাহ্মনবাড়িয়ার নবীনগর থানার মো. রবিউল্লাহ (২৩) সম্প্রতি রাজধানী ঢাকায় এসেছিলেন কাজের সন্ধানে। মোহাম্মদপুরে চাঁদ উদ্যান এলাকায় একটি বেকারিতে কাজ শুরু করেছিলেন তিনি। কিন্তু আরেকটু ভালো বেতনের কাজের সন্ধানে ঘুরতেন। চাঁদ উদ্যান এলাকার কিছু মানুষ রবিউল্লাহকে সন্দেহ করলেন ‘ছেলে ধরা’ হিসেবে। সেই সন্দেহ থেকে গণপিটুনি দেয়া হয়। এতে প্রাণ যায় রবিউল্লাহর।

মোহাম্মদপুর থানার এসআই কিবরিয়া রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘রবিউল্লাহ ব্রাহ্মনবাড়িয়া জেলার নবীনগর থানার মো. মোস্তফার ছেলে। শুধু গুজব থেকে গত সোমবার রবিউল্লাহকে পিটিয়ে মারা হয়েছে। সে ঢাকায় নতুন ছিল।’

পুলিশ জানায়, রবিউল্লাহর প্রাণহানির পরদিন মঙ্গলবার মোহাম্মদপুর বেড়িবাঁধে এক ব্যক্তির লাশ পাওয়া যায়। ‍বুধবার শ্যামলিতেও একটি লাশ পাওয়া যায়। এদের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

রাজধানীর বাইরেও ছেলে ধরা সন্দেহে গণপিটুনিতে প্রাণহানি ঘটেছে। বুধবার ব্রাহ্মনবাড়িয়ার আশুগঞ্জে এক যুবক গণপিটুনিতে নিহত হয়। আশুগঞ্জ থানার ওসি মো. মাসুদ আলম রাইজিংবিডিকে জানান, এই যুবকের পরিচয় মেলেনি।

গত রোববার লক্ষীপুরে ছেলে ধরা সন্দেহে এক ব্যক্তিকে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করা হয়। লক্ষীপুর থানার ওসি আজিজুর রহমান মিয়া বলেন, ‘গত এক সপ্তাহে অন্তত ১০ জনকে ছেলে ধরা সন্দেহে গণপিটুনি দিয়ে স্থানীয়রা থানায় দিয়েছেন। কিন্তু আমরা অনুসন্ধান করে দেখেছি এরা মানসিক ভারসাম্যহীন।’

র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার জ্যেষ্ঠ সহকারী পরিচালক এএসপি মিজানুর রহমান ভূঁইয়া রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘পদ্মা সেতুতে মানুষের মাথা ও রক্ত লাগবে- এটি সম্পূর্ণ গুজব। র‌্যাব গুজব রটনাকারীদের ধরতে অভিযান অব্যাহত রেখেছে।’

গুজবে আতঙ্কিত না হওয়ার পরামর্শ দিয়ে মিজানুর রহমান ভূঁইয়া বলেন, ‘গুজব কোনো খবর না। তাই এতে কান দেবেন না।’


রাইজিংবিডি/ঢাকা/১২ জুলাই ২০১৯/নূর/শাহনেওয়াজ

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন