ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

জাপার প্রেসিডিয়ামে আলোচনার কেন্দ্র হবেন রওশন

মোহাম্মদ নঈমুদ্দীন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-১২-২৭ ৮:৪৩:১৪ এএম     ||     আপডেট: ২০১৯-১২-২৭ ৪:৩৩:২৩ পিএম

জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কাউন্সিল ২৮ ডিসেম্বর । কাউন্সিল সফল করতে একদিন আগে প্রেসিডিয়ামের জরুরি সভা ডেকেছেন দলটির চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের।

শুক্রবার সকাল ১০টায় এইচ এম এরশাদের বনানী অফিসে দলের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরামের এই সভা অনুষ্ঠিত হবে। এতে সভাপতিত্ব করবেন জিএম কাদের। দলের মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গাসহ প্রেসিডিয়াম সদস্যদের উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে। চমক হিসেবে থাকছে সাবেক মহাসচিব এবি এম রুহুল আমিন হাওলাদারের সভায় যোগদানের বিষয়টি। দীর্ঘদিন পর তিনি সভায় যোগ দেবেন বলে তার ঘনিষ্ঠজনরা জানিয়েছেন। তবে সভায় যোগ দিচ্ছেন না দলের সিনিয়র কো চেয়ারম্যান ও বিরোধী দলের নেতা বেগম রওশন এরশাদ।

জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্সদ এরশাদের মৃত্যুর পর এই প্রথম দলীয় কাউন্সিল অনুষ্ঠান নিয়ে নেতৃত্বের প্রশ্নে চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছেন তার ছোটভাই জিএম কাদের। সেই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতেই মূলত প্রেসিডিয়ামের জরুরি সভা ডেকেছেন তিনি, এমন তথ্য জানিয়েছেন দলেরই এক প্রেসিডিয়াম সদস্য।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে তিনি জানান, রওশন এরশাদকে দলের শীর্ষপদে দেখতে চান তার অনুসারী সিনিয়র নেতারা। রওশনকে ছেড়ে দিয়ে জিএম কাদেরের নেতৃত্ব মানতেও নারাজ দলের একটি অংশ। অন্যদিকে তৃণমূলের নেতাকর্মীরা চান জিএম কাদেরকে চেয়ারম্যান হিসেবে। এতে দলের অধিকাংশ সিনিয়র নেতাও একাট্টা। নেতৃত্ব নিয়ে রওশন, জিএম কাদেরের দ্বন্দ্ব ছাড়াও দলের মহাসচিব এবং কো চেয়ারম্যান হওয়া নিয়ে সিনিয়র নেতারা একেকজন একেকভাবে তৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছেন। রওশনপন্থী দলের সিনিয়র নেতাদের পদ দিয়ে কিভাবে শান্ত করা যায় সভায় তা নিয়ে আলোচনা হতে পারে বলেও জানান জাপার ওই নেতা।

দলীয় সূত্র জানায়, আলোচনায় উঠে আসতে পারে গঠনতন্ত্র সংশোধন করে রওশন এরশাদের জন্য দলের প্রধান পৃষ্ঠপোষক কিংবা প্রধান উপদেষ্টার নতুন পদ সৃষ্টির বিষয়টি। তাছাড়া নতুন কমিটিতে দুজনের জায়গায় চার থেকে পাঁচ জনকে কোচেয়ারম্যান করার প্রস্তাব আসতে পারে। অতিরিক্ত মহাসচিব পদ সৃষ্টি, কাউন্সিলে নতুন কমিটির মেয়াদ বৃদ্ধিসহ ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে জাপার অংশ গ্হণের কৌশল নিয়েও সভায় আলোচনা হতে পারে। এছাড়া জিএম কাদেরের বিরুদ্ধে রিট মামলা নিয়ে সভায় ঝড় ওঠার সম্ভাবনা রয়েছে।

রওশনপন্থী দলের এক সিনিয়র নেতা বলেন, ‘যে যত কথাই বলুক আমাদের বিরোধী নেতা রওশন এরশাদকে সম্মানিত করতে হবে। তিনি না হলে জিএম কাদের আজ এমপি, বিরোধীদলীয় উপনেতা হতে পারতেন না। জাপাও দুবার বিরোধীদল হতে পারত না। বিএনপির যেখানে অস্তিত্ব নেই সেখানে ম্যাডামের দূরদর্শী সিদ্ধান্তে জাপা আজ সংসদে ও বাইরে শক্তিশালী অবস্থানে। তার এই অবদান আমাদের স্বীকার করতে হবে’।


ঢাকা/নঈমুদ্দীন/শাহেদ

     
 
রাইজিংবিডি স্পেশাল ভিডিও