ঢাকা, শনিবার, ১৪ চৈত্র ১৪২৬, ২৮ মার্চ ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

তাবাখখারুলের দোষ স্বীকার, অমিত-রাফাত কারাগারে

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-১০-২০ ৮:১৮:২৩ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-১০-২১ ৮:৫০:২৭ এএম

বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ রাব্বী হত্যা মামলায় বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের বহিস্কৃত সদস্য খন্দকার তাবাখখারুল ইসলাম ওরফে তানভীর দোষ স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছেন।

এ ছাড়া বুয়েটের বহিস্কৃত আইনবিষয়ক উপ-সম্পাদক অমিত সাহা এবং সামছুল আরেফিন রাফাতকে রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

রোববার ঢাকা মেট্টোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সাদবীর ইয়াছির আহসান চৌধুরীর আদালতে তাবাখখারুল স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। জবানবন্দি রেকর্ড শেষে আদালত তাকে কারাগারে পাঠান। একই আদালত অপর দুই আসামিকেও রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এরআগে এ তিন আসামিকে আদালতে হাজির করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক (নিরস্ত্র) মো. ওয়াহিদুজ্জামান। তাবাখখারুলের জবানবন্দি রেকর্ড এবং অপর দুই আসামিকে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা।

সংশ্লিষ্ট থানার আদালতে সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা এসআই মাজহারুল ইসলাম এসব তথ্য জানান।

গত ১১ অক্টোবর অমিত সাহার পাঁচ দিন এবং পরে ১৮ অক্টোবর তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। এ ছাড়া গত ১৫ অক্টোবর রাফাতের চার দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত।

এদিকে গত ৮ অক্টোবর তাবাখখারুলের পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। রিমান্ড শেষে গত ১৩ অক্টোবর তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। ১৫ অক্টোবর মামলার তদন্ত কর্মকর্তা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) পরিদর্শক (নিরস্ত্র) মো. ওয়াহিদুজ্জামান তাবাখখারুলের ফের সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। ১৮ অক্টোবর আদালত তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

প্রসঙ্গত, গত ৬ অক্টোবর রাতে বুয়েটের শেরেবাংলা হলে অচেতন অবস্থায় আবরার ফাহাদকে উদ্ধার করা হয়। ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনায় ১৯ জনকে আসামি করে সোমবার সন্ধ্যায় চকবাজার থানায় একটি হত্যা মামলা করেন আবরারের বাবা বরকত উল্লাহ।


ঢাকা/মামুন খান/সনি