ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ মাঘ ১৪২৬, ২৮ জানুয়ারি ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

নরসিংদীর চরাঞ্চলে সংঘর্ষ, ৫০০ টেঁটা উদ্ধার

জেলা প্রতিনিধি : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-১২-০৯ ১০:৫০:২৮ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-১২-১০ ২:৪৭:৩১ এএম

নরসিংদীর চরাঞ্চলীয় নজরপুর ইউনিয়নের আলীপুরায় দুই পক্ষের টেঁটাযুদ্ধ পরবর্তী পুলিশের অভিযানে ৫০০ টেঁটা উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় ১৩ জনকে আটক করা হয়।

সোমবার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জাকির হাসানের নেতৃত্বে অর্ধশতাধিক পুলিশ এই অভিযান চালায়। সন্ধ্যায় নরসিংদীর পুলিশ সুপার প্রলয় কুমার জোয়ারদার তার কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান।

পুলিশ সুপার বলেন, সদর উপজেলার আলীপুরায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দীর্ঘদিন ধরে কামাল মেম্বার ও ইসমাইল ওরফে ইসমাইল কোম্পানি গ্রুপের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। এরই জের ধরে সোমবার ভোরে ফজর নামাজের পর ইসমাইলের লোকজন একই গ্রামের শাহজাহান কাজীর বাড়ির ঘুমন্ত লোকজনের ওপর হামলা চালায়। এই হামলায় প্রায় ১০ জন আহত হয়।

আহতদের নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এর মধ্যে শাহজাহান কাজী (৫০) ও তার ছেলে মামুন কাজীকে (৮) ঢাকা মেডিক‌্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

প্রলয় কুমার জোয়ারদার বলেন, মাছ শিকার করে জীবিকা নির্বাহের অন্যতম হাতিয়ার ছিল টেঁটা। মূলত নদীর বড় বড় মাছ শিকার করার জন্যই এই হাতিয়ার চরাঞ্চলবাসী ব্যবহার করে আসছিল। তবে বহু বছরের পরিক্রমায় সে টেঁটা এখন যুদ্ধাস্ত্র হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে। টেঁটার আঘাতে বহু মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন। বরণ করেছেন পঙ্গুত্ব। এখন থেকে যার কাছে টেঁটা পাওয়া যাবে তাকেই গ্রেফতার করবে পুলিশ। টেঁটা যুদ্ধ, টেঁটা উদ্ধার ও আটকের ঘটনায় পৃথক পৃথক মামলা করা হবে।

সংবাদ সম্মেলনে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মোহাম্মদ শফিউর রহমান, বেলাল হোসেন, নরসিংদী প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মাজহারুল পারভেজ মন্টি, নরসিংদী প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি নিবারণ রায়সহ নরসিংদীতে কর্মরত বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেট্রনিক মিডিয়ার কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।


নরসিংদী/গাজী হানিফ/সাইফ

     
 

আরো খবর জানতে ক্লিক করুন : নরসিংদী, ঢাকা বিভাগ