ঢাকা, বুধবার, ৭ মাঘ ১৪২৬, ২২ জানুয়ারি ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

শিরোপা জিততে খেলোয়াড়দের চাপ দিচ্ছেন না আফতাব

ইয়াসিন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৪-২০ ৪:৫৬:১৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৪-২০ ৫:৩৪:০১ পিএম

ক্রীড়া প্রতিবেদক : ওয়ালটন ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের শিরোপা নির্ধারণ হয়ে যেতে পারে রোববারই। বিকেএসপিতে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ জিতে গেলে গতবারের রানার্সআপরা এবার শিরোপার স্বাদ পাবে। আবাহনী জিতলে শিরোপা নিষ্পত্তির জন্য অপেক্ষা করতে হবে সুপার লিগের শেষ রাউন্ড পর্যন্ত।

এবার প্রথম পর্বের খেলায় গতবারের চ্যাম্পিয়ন আবাহনীকে হারিয়েছিল রূপগঞ্জ। সেই সুখস্মৃতি নিয়ে আফতাব আহমেদের শিষ্যরা আবাহনীর বিপক্ষে মাঠে নামবেন রোববার। আজ মিরপুরে অনুশীলন করেছে রূপগঞ্জ। অনুশীলন শেষে গণমাধ্যমের মুখোমুখি হন রূপগঞ্জের কোচ আফতাব আহমেদ। জাতীয় দলের প্রাক্তন ক্রিকেটারের কথা শুনেছে রাইজিংবিডি।

আবাহনীর বিরুদ্ধে আবার লড়াই?
আফতাব আহমেদ: আবাহনী তো নিঃসন্দেহে ভালো দল। সবকিছু মিলিয়ে যদি আপনি চিন্তা করেন তাহলে দেখবেন আমাদের দল অনেক ভালো ক্রিকেট খেলছে। সুতরাং আমাদের কে খেলছে কিংবা কে খেলছে না সেটি নিয়ে চিন্তা না। আমাদের চিন্তা হলো কালকে কীভাবে ভালো ক্রিকেট খেলব। আমরা যেভাবে ভালো ক্রিকেট খেলে এসেছি যদি সেভাবে আমরা ক্রিকেট খেলতে পারি তাহলে আমাদের খুব একটা পার্থক্য হবে না ইনশাল্লাহ।

আপনি এবার প্রথমবারের মতো কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন প্রথম আসরেই বাজিমাত?
আফতাব আহমেদ:  আলহামদুলিল্লাহ, এটি আসলে অনেক বড় একটি ব্যাপার। সত্যি কথা যখন দলটি বানিয়েছিলাম তখন এত আশা করিনি। আলহামদুলিল্লাহ আমি যে বিশ্বাস করে নিয়েছি তার চেয়ে অনেক বেশি আমাকে উপহার দিয়েছে। প্রত্যেকটি ম্যাচে ওরা যেভাবে আত্মবিশ্বাস নিয়ে খেলছে তাতে আমরা ইনশাল্লাহ যেকোনো দলকে বিপদে ফেলতে পারব। আমরা যদি এভাবে ক্রিকেট খেলে যাই তাহলে ভালো কিছু আশা করছি ইনশাল্লাহ।

ঢাকা লিগে কোচদের ভূমিকা কতটুকু কিংবা কতটুকু পার্থক্য করা যায়?
আফতাব আহমেদ:  করা যায় অবশ্যই। আমার বিশেষ কিছু অবশ্য করা লাগেনি। আমি ওদের মাঝে সব সময় বিশ্বাসটা ঢোকানোর চেষ্টা করেছি যে, যদি ভালো ক্রিকেট খেলা যায় তাহলে যেকোনো দলকে হারানো সম্ভব। সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ হলো আমাদের দলে জাতীয় দলের অনেকে আছে। তবে আমাদের দলে ওরা যখন এসেছে তখন সেটি তারা মনেই করেনি যে তারা জাতীয় দলের খেলোয়াড়। আমরা ঠিক যেভাবে নিয়মশৃঙ্খলা মেনে আসছি ওরাও ঠিক একইভাবে মানিয়ে নিয়েছে। আমি বলব যে এটাই আমাদের সবথেকে বড় পার্থক্য ফলাফল ভালো করার ব্যাপারে।

আবাহনীর থেকে দুই পয়েন্ট এগিয়ে আপনারা কাল জিতে গেলে তো শিরোপাও নিশ্চিত?
আফতাব আহমেদ: আপনাদের প্রথম থেকেই একটা কথা বলেছিলাম যে, আমরা অনেক রিল্যাক্স। আমাদের কোনও চাপ কাজ করছে না। কারণ আমরা এখন পর্যন্ত যা ফলাফল করেছি আলহামদুলিল্লাহ। আমাদের দুই পয়েন্ট করে লক্ষ্য। আর সেভাবেই যাব। আর প্রতিপক্ষ দলের ব্যাপারটি আমি বলতে পারব না। ওনারা কতটুকু কীভাবে আছেন সেটি ওনারাই ভালো বলতে পারবেন।

চ্যাম্পিয়ন দলের বিপক্ষে ম্যাচ, বাড়তি কোনো চাপ, কোনো চিন্তা?
আফতাব আহমেদ: আপনি যদি এমনটা চিন্তা করেন তাহলে......দেখুন আমরা কিন্তু প্রথম ম্যাচটি মাশাআল্লাহ ভালোভাবেই জিতেছি। যেটি আমি প্রথমেই বললাম যে আমরা কোনও ম্যাচই ম্যাচ হিসেবে নিচ্ছি না। আমাদের লক্ষ্য এবং স্লোগানই একটি যে আমরা দুই পয়েন্ট নিয়ে এগোব। আমরা প্রতিপক্ষ দলকে অনুসরণ করছি না। টেবিলের যে দুই পয়েন্ট আছে সেটিতে গুরুত্ব দিচ্ছি।

বড় দলের বিপক্ষে খেলতে গেলে চাপ তো থাকেই। তবে এটি আমার খেলোয়াড়দের বুঝতে দিতে চাই না। আমরা চেষ্টা করি ক্রিকেটারদের যত রিল্যাক্স রাখা যায়। অফিসিয়াল লেভেল থেকে হয়তো কোনও চাপ তৈরি করতে পারে, তবে আমি নিজে সব সময় চেষ্টা করি যেন খেলোয়াড়দের মাঝে এমন কোনও চাপ তৈরি না হয়।

আম্পায়ারিং নিয়ে কোনো অভিযোগ?
আফতাব আহমেদ: আম্পায়ারিং অনেক ভালো হচ্ছে এবার। আমি এখনও তেমন কিছু দেখিনি। আশা করি শেষ যে দুই ম্যাচ আছে, সেখানেও ভালো কিছু দেখব।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/২০ এপ্রিল ২০১৯/ইয়াসিন/পরাগ