ঢাকা, বুধবার, ৬ ফাল্গুন ১৪২৬, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

শেষ ওভারে শাইনপুকুরের রোমাঞ্চকর জয়

শামীম হোসেন পাটোয়ারি : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০২-২৫ ১:৩২:৫৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০২-২৫ ৬:৫৩:১৯ পিএম
ছবি: শাকিল

ক্রীড়া প্রতিবেদেক: ওয়ালটন ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে টি-টোয়েন্টির প্রথম ম্যাচে আজ মুখোমুখি হয় শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাব ও লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ। দিনের প্রথম ম্যাচে শেষ ওভারে রোমাঞ্চকর জয় পেয়েছে শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাব।

ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলী স্টেডিয়ামে টস জিতে রূপগঞ্জকে আগে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানায় শাইনপুকুর। বৃষ্টির কারণে খেলা কিছুটা দেরিতে শুরু হওয়ায় ম্যাচের পরিধি নেমে আসে ১৩ ওভারে। আগে ব্যাট করে ৫ উইকেটে ১১৫ রান করে রূপগঞ্জ। জবাবে ৩ বল হাতে রেখেই ৫ উইকেটে লক্ষ্যে পৌঁছে যায় শাইনপুকুর।

শেষ ওভারে জয়ের জন্য ১১ রান দরকার ছিল শাইনপুকুরের। ইনিংসের ১২তম ওভারের শেষ বলে ধীমান ঘোষ যখন আউট হন শাইনপুকুরের দলীয় রান তখন ১০৫। শেষ ওভারের প্রথম বলে তৌহিদ হৃদয় ১ রান নিয়ে প্রান্ত বদল করে লক্ষ্যটা ১০ এ নামিয়ে আনেন। এরপর উইকেটে আসা নতুন ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ দেলোয়ার ১ ছক্কা ও ১ চার হাঁকিয়ে ৩ বল আগেই দলের জয় নিশ্চিত করেন।

লক্ষ্য তাড়ায় ব্যাট করতে নেমে দলটির হয়ে ভালো সূচনা এনে দেন ওপেনার মোহাম্মদ সাব্বির হোসেন। ২৫ বলে ৩২ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। আরেক ওপেনার সোহরাওয়ার্দী শুভ ১৬ রান করে রানআউট হন। ক্রিজে এসে মূল ঝড়টা তোলেন শুভাগত হোম। মাত্র ১০ বলে ২ চার ও ৩ ছক্কায় ৩২ রানের ঝড়ো ইনিংস উপহার দেন ডানহাতি ব্যাটসম্যান। তার বিস্ফোরক ইনিংসেই মূলত দ্রুত লক্ষ্যে পৌঁছতে সহায়তা করেছে শাইনপুকুরকে।

এর আগে টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে রূপগঞ্জের হয়ে সর্বোচ্চ ইনিংসটি খেলেন শাহারিয়ার নাফীস। ২৪ বলে ২ চার ও ৪ ছক্কায় ৪৬ রান করে অপরাজিত ছিলেন তিনি। এছাড়া ওপেনার নাঈম শেখ ১৯, সালাউদ্দিন পাপ্পু ১৪ ও নাঈম ইসলামের ১৫ রানের ইনিংসে ভর করে ১১৫ রানের পুঁজি পেয়েছিল রূপগঞ্জ।

বল হাতে শাইনপুকুরের হয়ে সুজন হাওলাদার ও সোহরাওয়ার্দী শুভ ২টি করে উইকেট নেন।

ঝড়ো ইনিংসে দলকে জয় উপহার দেওয়ায় ম্যান অব দ্য ম্যাচের পুরস্কার উঠে শুভাগত হোমের হাতে।





রাইজিংবিডি/ঢাকা/২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৯/শামীম/ইয়াসিন