ঢাকা, শনিবার, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

‘ভালো বই সৃষ্টির জন্য দক্ষ হাতে সম্পাদনা জরুরি’

সাইফ বরকতুল্লাহ : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৭-০২-০৫ ৯:১২:১২ এএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০২-০৫ ৯:১৪:৪৬ এএম
রাইজিংবিডির স্টলে লেখিকা নাজনীন তৌহিদ : (ছবি : ছাইফুল ইসলাম মাছুম)

সাইফ বরকতুল্লাহ : সাহিত্যাঙ্গনের পরিচিত মুখ নাজনীন তৌহিদ। লেখালেখির সঙ্গেই তার দীর্ঘদিনের বসবাস। কবিতা, গল্প, উপন্যাস, ভ্রমণ- বলা যায় সব শাখায় তার সমান পদচারণা। তার লেখা শাল পিয়ালের বনে, লাল বড়ুজান, ঠিকানা কোথায়, চাইনিজ রেসিপি ব্যাপক জনপ্রিয় হয়েছে। এবারের (২০১৭) অমর একুশে গ্রন্থমেলায় শিশু-কিশোরদের জন্য তার একগুচ্ছ নতুন বই প্রকাশিত হয়েছে। বইগুলো প্রকাশ করেছে বইপত্র প্রকাশনী। শনিবার সন্ধ্যায় আসেন বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে রাইজিংবিডির স্টলে। এ সময় নতুন বই, বইমেলা ও সাহিত্যের নানা প্রসঙ্গ নিয়ে কথা বলেন তিনি।

রাইজিংবিডি : এবারের বইমেলায় আপনার কী কী বই বের হয়েছে?
নাজনীন তৌহিদ : এবার আমার তিনটি শিশুতোষ বই বের হয়েছে। বইগুলো হলো- ‘গল্পের ঝুড়ি’, ভূতো মামা সিরিজের দুটি বই ‘ভূতো মামার ব্যাগে এত্ত এত্ত ভূত সাথে একটি পরীও আছে’ ও ‘ভূতো মামার ব্যাগে একটি ভালো ভূত আছে’।

রাইজিংবিডি: আপনার লেখার বিষয়বস্তু কী?
নাজনীন তৌহিদ : বিভিন্ন বিষয় নিয়ে লেখালেখি করি। কবিতা, গল্প, উপন্যাস, ভ্রমণ। রান্নার বইও লিখেছি। এখন তো শিশুদের জন্য লিখছি।

রাইজিংবিডি : এই যে এত বিষয়ে লিখছেন, তাহলে আপনাকে সব্যসাচী বলা যেতেই পারে?
নাজনীন তৌহিদ : হা হা হা..। বলা ঠিক হবে কি না জানি না।

রাইজিংবিডি : এবারের বইমেলা কেমন  দেখলেন?
নাজনীন তৌহিদ : ভালো। বড় পরিসরে মেলা, স্টল সাইজও বড়। বড় পরিসরে মেলা হওয়ায় ইচ্ছে মতো ঘুরা যাচ্ছে।

রাইজিংবিডি : প্রতি বছরই বইমেলা হচ্ছে। একটি অভিযোগ প্রায়ই শোনা যায় লেখক-প্রকাশক সম্পর্ক নিয়ে টানাপোড়নের কথা। আপনার ভাবনা কী?
নাজনীন তৌহিদ : আসলে কিছু তো সমস্যা থাকবেই। এর মধ্যেই সবাইকে কাজ করে যেতে হবে। আমি বলব, লেখক আর প্রকাশক- দুই পক্ষের মধ্যে ভালো সম্পর্ক তৈরি হলে এ অভিযোগটা থাকবে না।

রাইজিংবিডি : এবার বইমেলার শুরু দিকে বই সম্পাদনা নিয়ে চারদিকে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনা শোনা গেছে। এ বিষয়ে আপনার বক্তব্য কী?
নাজনীন তৌহিদ : দেখেন একটা ভালো বই সৃষ্টির জন্য দক্ষ হাতে সম্পাদনা জরুরি। আমাদের দেশে কিন্তু এ বিষয়ে কাজ কেউ কেউ শুরু করেছে। সামনে হয়তো আরো হবে।

রাইজিংবিডি : বইমেলা নিয়ে আপনার প্রত্যাশা?
নাজনীন তৌহিদ : প্রত্যাশা অনেক। প্রতি বছর বইমেলা থেকে কিছু নতুন লেখককে  আমরা পাচ্ছি। যারা ভালো লিখছেন।

রাইজিংবিডি : নিজের লেখা সম্পর্কে আপনার মূল্যায়ন?
নাজনীন তৌহিদ : আমি একজন লেখক। লিখব, পাঠকের হৃদয়ে ঢুকব। সর্বোপরি আমি লেখক হতে চাই।

রাইজিংবিডি : নতুন লেখকদের জন্য আপনার কোনো পরামর্শ?
নাজনীন তৌহিদ : যারা নতুন লিখছেন, তাদের অনেক পড়তে হবে। আমি বলব, নিজেকে ঝালাই করে নিয়ে লেখালেখি শুরু করতে হবে। নিজের লেখা সম্পর্কে নিজেকেই মূল্যায়ন করতে হবে।

রাইজিংবিডি : লেখালেখি নিয়ে আপনার পরিকল্পনা?
নাজনীন তৌহিদ : শিশুদের জন্য আরো বেশি লিখতে চাই।

রাইজিংবিডি : আপনাকে অনেক ধন্যবাদ।
নাজনীন তৌহিদ : আপনাকেও। রাইজিংবিডিকে  শুভেচ্ছা।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৭/সাইফ/এসএন

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন