ঢাকা, শুক্রবার, ৫ আশ্বিন ১৪২৬, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

এবার ভাঙবে অধিনায়ক মহেলার রেকর্ড!

ইয়াসিন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৫-২১ ৯:৪৭:২৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৫-২১ ৯:৫১:১৬ পিএম
এবার ভাঙবে অধিনায়ক মহেলার রেকর্ড!

ক্রীড়া ডেস্ক: অধিনায়ক হিসেবে বিশ্বকাপে এক আসরে সবথেকে বেশি রানের রেকর্ড শ্রীলঙ্কার মাহেলা জয়াবর্ধনের দখলে।  ওয়েস্ট ইন্ডিজে অনুষ্ঠিত ২০০৭ বিশ্বকাপে মাহেলা ১১ ম্যাচে রান করেছিলেন ৫৪৮।

এবার কি ভাঙবে সেই রেকর্ড?

ক্রিকেট বোদ্ধাদের আলোচনার টেবিলে এ নিয়ে কথা উঠেছে।  অনেকেই বলছে এবার রেকর্ড ভেঙে চূড়মার হবে।  রান বন্যা হবে ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া দ্বাদশ বিশ্বকাপে। শেষ কয়েক বছর ধরেই ওয়ানডে ক্রিকেটের ধরন পাল্টেছে।  ব্যাটসম্যানদের আধিপত্যে বোলাররা দিশেহারা। ফিল্ডিংয়ের নতুন নিয়ম-কানুন আর মাত্রাতিরিক্ত ফ্ল্যাট উইকেটে ব্যাটসম্যানদের হাসি যেন থামছেই না।  এমন সময়ে ইংল্যান্ডে বিশ্বকাপ যেন ব্যাটসম্যানদের জন্য বাড়তি পাওয়া।

ইংল্যান্ডের মাটিতে শেষ কয়েক বছর ব্যাটসম্যানরা হাতখুলে রান করেছেন।  শুরুতে বোলারার একটু চাপ প্রয়োগ করলেও সময়ের সাথে সাথে ব্যাটসম্যানরা হয়ে উঠেন ভয়ংকর।  সবশেষ ইংল্যান্ড-পাকিস্তান সিরিজই যেন তার প্রমাণ।  চার ম্যাচের প্রত্যেকটিতে তিনশর বেশি রান করেছে ইংল্যান্ড।  প্রতিটিতেই আবার তারা জিতেছে।  আবার পাকিস্তান টানা তিন ম্যাচে তিনশর বেশি রান করে হেরেছে।  এমন রান উৎসব দেখা যাবে বিশ্বকাপেও।

তাইতো রেকর্ড বুক নিয়ে চিন্তিত অনেকে।  ব্যক্তিগত মাইলফলকের পাশাপাশি অধিনায়কদের রেকর্ড নিয়ে আলোচনা হচ্ছে। যেখানে সবার ওপরে মাহেলার নাম।  ১ সেঞ্চুরি আর ৪ হাফ সেঞ্চুরিতে ২০০৭ বিশ্বকাপে মাহেলা করেছিলেন ৫৪৮ রান। ওই বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হওয়া অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক ছিলেন রিকি পন্টিং।  দলকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেওয়া পন্টিং ১১ ম্যাচে করেছিলেন ৫৩৯ রান।  মাহেলার মতোই ১ সেঞ্চুরি আর ৪ হাফ সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছিলেন তিনি।

২০১৫ বিশ্বকাপ দারুণ কেটেছিল এবি ডি  ভিলিয়ার্সের।  ৮ ম্যাচে ৪৮২ রান করেছিলেন ‘মিস্টার ৩৬০ ডিগ্রি’।  এছাড়া ২০০৩ সালে সৌরভ গাঙ্গুলী ও ২০১১ সালে কুমার সাঙ্গাকারা সমান ৪৬৫ রান করেছিলেন।  এবার তাদেরকে ছাড়িয়ে নতুন কীর্তি গড়ার সুযোগ রয়েছে অনেকের।

এদের মধ্যে ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলির নাম আসছে সবার উপরে।  ওয়ার্ল্ড র‌্যাঙ্কিংয়ের নম্বর ওয়ান ব্যাটসম্যান কোহলি। তার ব্যাট হাসলে বোলাররা লন্ডভন্ড হন। নতুন করে তাকে নিয়ে বলার কিছুই নেই।  এছাড়া অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক অ্যারণ ফিঞ্চ, ইংল্যান্ডের অধিনায়ক এউয়ন মরগ্যান ও দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিসের সামর্থ্য রয়েছে রেকর্ড বুক ওলট-পালট করার।

 

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/২১ মে ২০১৯/ইয়াসিন

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন