ঢাকা, সোমবার, ১৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০১ জুন ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

‘সরকারের সমন্বয়হীনতায় দেশ আজ বিপর্যয়ের মুখোমুখি’

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৪-২৩ ১১:৪৭:১৯ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৪-২৩ ১১:৪৭:১৯ পিএম

করোনাভাইরাস নিয়ে সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত গ্রহণে দীর্ঘসূত্রিতা, সমন্বয়হীনতার কারণে দেশ আজ এক ভয়াবহ বিপর্যয়ের সম্মুখীন।

বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএ) সাবেক নেতারা এ দাবি করেছেন।

বৃহস্পতিবার (২৩ এপ্রিল) বিএমএ সাবেক সভাপতি অধ্যাপক ডা.এ কে এম আজিজুল হক ও সাবেক মহাসচিব অধ্যাপক ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা বলেন।

অধ্যাপক ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন গণমাধ্যমে এ বিজ্ঞপ্তি পাঠানোর তথ্য নিশ্চিত করেন। 

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে  সহকারী অধ্যাপক ডা. মঈনউদ্দিন আহমেদের মৃত্যু, বিপুল সংখ্যক চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মী আক্রান্তের দায় সরকার এড়াতে পারে না।

সেখানে আরও বলা হয়, দেশে এরই মধ্যে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৪ হাজার ১৮৬ জন। মৃত্যুবরণ করেছেন সহকারী অধ্যাপক ডা. মঈনউদ্দিন আহমেদসহ ১২৭ জন। করোনা সংক্রমণের শুরু থেকে আজ পর্যন্ত সরকারি বিভিন্ন সিদ্ধান্তহীনতা, সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত গ্রহণে দীর্ঘসূত্রিতা, সমন্বয়হীনতার কারণে দেশ আজ এক ভয়াবহ বিপর্যয়ের সম্মুখীন’

এতে আরও বলা হয়, ‘করোনার এই মহামারিতে প্রথম সারির যোদ্ধা হচ্ছেন চিকিৎসক, নার্স, মেডিক্যাল টেকনোলজিস্ট ও অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মীরা। অথচ চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের ব্যক্তিগত সুরক্ষা সামগ্রী বিতরণের ক্ষেত্রে দেখা যায় সমন্বয়ের অভাব। হাসপাতালগুলোতে দেওয়া হচ্ছে নিম্ন মানের পিপিই, এন-৯৫ বা তার সমমানের মাস্কের নামে দেওয়া হচ্ছে সাধারণ মাস্ক। এরই ফলে ইতিমধ্যে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন দুইশতাধিক চিকিৎসক, দেড়শতাধিক নার্স, মেডিক্যাল টেকনোলজিস্ট ও অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মীরা।’

চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের মানসম্মত ব্যক্তিগত সুরক্ষা সামগ্রী নিশ্চিতকরণ, করোনায় আক্রান্তদের সুচিকিৎসা নিশ্চিত করার দাবি করেন সাবেক এ চিকিৎসক নেতারা।


ঢাকা/সাওন/ইভা