ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৪ জুন ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

রোগী তল্লাশির নামে কিশোরী ধর্ষণে জড়িতদের শাস্তি দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৩-৩১ ৯:২৪:২৪ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৩-৩১ ৯:২৪:২৪ পিএম

জামালপুর জেলায় করোনা রোগী তল্লাশির নামে কিশোরীকে তুলে নিয়ে ধর্ষণের ঘটনায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিতের দাবি জানিয়েছে সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরাম।

মঙ্গলবার (৩১ মার্চ) ফোরামের কেন্দ্রীয় সভাপতি রওশন আরা রুশো এবং সাধারণ সম্পাদক শম্পা বসুর গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে এ দাবি জানানো হয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, পত্রিকায় প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, জামালপুর জেলায় গত রোববার (২৯ মার্চ) রাতে এক বাড়িতে ‘এই ঘরে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী লুকিয়ে আছে। তল্লাশি করতে হবে। ঘর খোলেন।’ এ কথা বলে পুলিশ পরিচয়ে ঘরে ঢুকে পাঁচ বখাটে।  এর পর গৃহকর্তার গলায় ছুরি ধরে এবং তার স্ত্রীকে মারধর করে তাদের কিশোরী কন্যাকে (১৪) তুলে নদীর পাড়ে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করে ফেলে রাখে। পরে কিশোরীর বাবা তাকে উদ্ধার করে। পুলিশ এখন পর্যন্ত একজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

আরও বলেন, করোনা ভাইরাসের আতঙ্কে সারাদেশ যখন লকডাউন তখন পাঁচ যুবক এমন ভয়ঙ্কর ঘটনা ঘটালো। লকডাউনের আগে দেখা গেছে, জন্মদিনের দাওয়াত দিয়ে বাসায় এনে ধর্ষণ, চলন্ত বাসে ধর্ষণ, রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ এমন কোন পন্থা নেই যা করা হচ্ছে না। এখন লকডাউনের সময়ে নারী, কিশোরী-কন্যা শিশুরা ঘর থেকে বের হচ্ছে খুব কম। তখন এভাবে পুলিশের পরিচয়ে তল্লাশির নাম করে কিশোরীকে ধর্ষণ করা হলো।

তারা অবিলম্বে ধর্ষকদের সবাইকে গ্রেপ্তার ও দ্রুত বিচারের দাবি জানান।


ঢাকা/মামুন/জেডআর