ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৪ আশ্বিন ১৪২৬, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

নাতির আবদারে মার্সেল ফ্রিজ কিনে টিভি পেলেন নানা

জাকির হোসাইন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৮-০৪-০৭ ৬:২৩:৩৬ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-০৬-০৪ ৮:৩৭:৩৫ পিএম
নাতির আবদারে মার্সেল ফ্রিজ কিনে টিভি পেলেন নানা
মার্সেল ফ্রিজ কিনে পুরস্কার পাওয়া ২০ ইঞ্চি এলইডি টিভি বুঝে নিচ্ছেন চাঁদপুরের হাজী মো. শহীদুল্লাহ
Walton E-plaza

নিজস্ব প্রতিবেদক : নাতি সবুজের আবদার রাখতে দেশীয় ব্র্যান্ড মার্সেলের একটি ফ্রিজ কেনেন নানা হাজী মো. শহীদুল্লাহ। ফ্রিজ কেনার পরপরই ডিজিটাল ক্যাম্পেইনের আওতায় তা রেজিস্ট্রেশন করতেই মার্সেল ব্র্যান্ডেরই একটি ২০ ইঞ্চি এলইডি টিভি সম্পূর্ণ ফ্রি পান চাঁদপুর জেলার মতলব থানার বাসিন্দা শহীদুল্লাহ।

হাজী মো. শহীদুল্লাহর মতোই মার্সেলের ফ্রিজ কিনে ২০ ইঞ্চি এলইডি টিভি সম্পূর্ণ ফ্রি পেয়েছেন আরেক ক্রেতা সিলেটের বাসিন্দা আব্দুল মালিক। মার্সেলের ফ্রিজ কিনে এলইডি টিভি ফ্রি পাওয়ায় ব্যাপক খুশি চাঁদপুরের হাজী মো. শহীদুল্লাহ ও সিলেটের আব্দুল মালিক।

মার্সেল সূত্র মতে, বিক্রয়োত্তর সেবা কার্যক্রম অনলাইনের আওতায় আনতে গত ২ এপ্রিল থেকে দেশব্যাপী আবারও ডিজিটাল ক্যাম্পেইন শুরু করেছে মার্সেল। ক্যাম্পেইনের আওতায় একজন ক্রেতা প্রতিবার মার্সেলের ফ্রিজ, টিভি কিংবা এসি কিনে তা রেজিস্ট্রেশন করলে পেতে পারেন আমেরিকা, রাশিয়া ভ্রমণের সুযোগ কিংবা মার্সেলের ফ্রিজ, টিভি ও এসি সম্পূর্ণ ফ্রি। তবে এসব সুযোগ না পেলেও, ক্রেতার জন্য রয়েছে সর্বোচ্চ ১ হাজার টাকা পর্যন্ত নিশ্চিত নগদ ছাড়।

হাজী মো. শহীদুল্লাহর সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সপ্তম শ্রেণি পড়ুয়া নাতি সবুজ বেশ কিছুদিন ধরে ফ্রিজের আবদার করছিল। নাতির সেই আবদার পূরণ করতে গত ৪ এপ্রিল চাঁদপুরের মতলব বাজারে মার্সেলের শোরুম আল ওয়াফা ইলেক্ট্রনিক্সে যান তিনি। সে সময় নাতি সবুজও সঙ্গে ছিল। নানা-নাতি পছন্দ করে ২৪ হাজার টাকায় কেনেন মার্সেলের ১১ সিএফটির একটি ফ্রিজ। কেনার পরপরই শোরুমের বিক্রয় প্রতিনিধির দেওয়া তথ্য মতে মোবাইল ফোনে এসএমএসের মাধ্যমে তা রেজিস্ট্রেশন করেন তিনি। রেজিস্ট্রেশনের পরপরই তিনি মার্সেল ব্র্যান্ডেরই আরেকটি ২০ ইঞ্চি এলইডি টিভি ফ্রি পাওয়ার ফিরতি এসএমএস পান কোম্পানির কাছ থেকে।
 



ফ্রিজ কিনে টিভি ফ্রি পাওয়ার প্রতিক্রিয়ায় হাজী মো. শহীদুল্লাহ বলেন, কী সৌভাগ্য আমার! এই প্রথম কোনো কোম্পানির পণ্য কিনে এরকম পুরস্কার পেলাম। এর আগেও বিভিন্ন কোম্পানির পণ্যে অসংখ্য উপহারের কথা বললেও, কেনার পর কোনো উপহারই কখনো পাইনি। কিন্তু দেশীয় কোম্পানি মার্সেলের ফ্রিজ কিনে এই প্রথম উপহারস্বরূপ এলইডি টিভি ফ্রি পেলাম। এজন্য মার্সেল কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

অন্যান্য ব্র্যান্ডের ফ্রিজ না কিনে মার্সেলের ফ্রিজ ক্রয় প্রসঙ্গে তিনি বলেন, মার্সেল আমাদের দেশেরই কোম্পানি। এছাড়া বাজারে অন্যান্য ব্র্যান্ডের ফ্রিজের চেয়ে মার্সেল ব্র্যান্ডের ফ্রিজের দাম অনেক কম। টেকেও অনেক দিন। আমার অনেক প্রতিবেশীর বাড়িতেই মার্সেলের ফ্রিজ, টিভিসহ বিভিন্ন পণ্য ব্যবহার হচ্ছে। সবগুলো পণ্যই বেশ ভালো চলছে। তাই নাতির জন্য আমিও মার্সেল ফ্রিজ কিনলাম।

এদিকে আল ওয়াফা ইলেক্ট্রনিক্সের সত্ত্বাধিকারী হাজী বিল্লাল সরকার বলেন, কোম্পানির এই ধরনের অফারে বাজারে ভালো সাড়া পাওয়া যাচ্ছে। যে এলাকায় বা শোরুমে এ ধরনের পুরস্কার মিলছে সেখানে অনেক প্রচারণার সাথে সাথে বিক্রি অনেক বাড়ছে। এর আগের ডিজিটাল ক্যাম্পেইনের সময়ও ভালো সাড়া পাওয়া গিয়েছিল। এবারও ক্রেতাদের কাছ থেকে ব্যাপক সাড়া পাওয়া যাবে।

মার্সেল ফ্রিজ কিনে টিভি উপহার পাওয়া আরেকজন ক্রেতা হলেন সিলেটের গোলাপগঞ্জের বাসিন্দা আব্দুল মালিক। তিনি ২২ হাজার টাকায় দেশীয় ব্র্যান্ড মার্সেলের একটি ফ্রিজ কিনে ডিজিটাল ক্যাম্পেইনের আওতায় তা রেজিস্ট্রেশন করতেই পেয়ে যান ২০ ইঞ্চি এলইডি টিভি সম্পূর্ণ ফ্রি। অপ্রত্যাশিতভাবে এ পুরস্কার পেয়ে তিনি ও তার পরিবারও দারুণ খুশি।

ডিজিটাল ক্যাম্পেইনের আওতায় গ্রীষ্মকালে মার্সেল ফ্রিজ ও এসিতে এবং বিশ্বকাপ ফুটবল উপলক্ষে মার্সেল টিভিতে এসব সুবিধা পাওয়া যাবে আগামী ৩০ জুন, ২০১৮ পর্যন্ত।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/৭ এপ্রিল ২০১৮/পলাশ/রফিক

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন