ঢাকা, শুক্রবার, ১৯ চৈত্র ১৪২৬, ০৩ এপ্রিল ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

নভেম্বরে লক্ষ্মীপুরে বঙ্গবন্ধু স্মৃতিস্তম্ভ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০২-২৭ ৫:২৮:৫৩ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০২-২৭ ৫:২৮:৫৩ পিএম

এ বছরের নভেম্বরের মধ্যেই লক্ষ্মীপুর জেলায় বঙ্গবন্ধু স্মৃতিস্তম্ভ ও উন্নতমানের গুচ্ছগ্রাম নির্মাণ করা হবে বলে জানিয়েছেন ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী।

বৃহস্পতিবার ভূমি মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে   আয়োজিত সভায় তিনি এ কথা জানান।

বঙ্গবন্ধু স্মৃতিস্তম্ভটি জেলার রামগতি উপজেলার পোড়াগাছা গুচ্ছগ্রাম এলাকায় নির্মাণ করা হবে। ভূমি মন্ত্রণালয় কর্তৃক লক্ষ্মীপুর জেলার রামগতি উপজেলার পোড়াগাছা গুচ্ছগ্রাম এলাকার নির্ধারিত স্থানে ‘বঙ্গবন্ধু স্মৃতিস্তম্ভ ও আপগ্রেডেড গুচ্ছগ্রাম নির্মাণের লক্ষ্যে গঠিত কমিটি’ কর্তৃক উপস্থাপিত সুপারিশমালা, প্রকল্পের মাস্টার প্ল্যান, ত্রিমাত্রিক নকশা এবং স্বতন্ত্র বাড়ির নকশা বাস্তবায়নের বিষয়ে এ সভা হয়।

বেসামরিক বিমান ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সাবেক মন্ত্রী এ. কে. এম. শাহজাহান কামাল, এমপি (লক্ষ্মীপুর-৩), সাবেক পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী মেজর (অব.) আবদুল মান্নান, এমপি (লক্ষ্মীপুর-৪) সভাতে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

সাইফুজ্জামান চৌধুরী বলেন, সংশ্লিষ্ট কমিটির মত অনুযায়ী সোনাপুর-রামগতি সড়কের পাশে স্মৃতিস্তম্ভ নির্মাণের প্রচলিত ধারণার বাইরে বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিবিজড়িত চর পোড়াগাছায় একটি আধুনিক সুযোগ-সুবিধা সম্বলিত মুজিববর্ষ স্মারক গুচ্ছগ্রাম নির্মাণ করে তার প্রবেশ পথে একটি স্মৃতিস্তম্ভ নির্মাণ করা হবে।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু স্মারক গুচ্ছগ্রামের অভ্যন্তরে স্থানীয় জনগণের চলাচলের জন্য পাকা রাস্তা নির্মাণ করা হবে। গ্রামের এক প্রান্তে একটি শিশু পার্কের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। স্থানীয় জনগণের স্বাস্থ্য সেবার বিষয়টি চিন্তা করে একটি কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপনের জন্য প্রয়োজনীয় জায়গা রাখা হয়েছে।

গুচ্ছগ্রামের বর্তমান মডেলের পরিবর্তে ভূমি মন্ত্রণালয় বঙ্গবন্ধু স্মারক গুচ্ছগ্রামের মডেলটি ভবিষ্যতে প্রণিতব্য ডিপিপিতে অন্তর্ভুক্ত করে দেশব্যাপী আধুনিক গুচ্ছগ্রাম সৃজনের ব্যবস্থা নেয়া হবে’, ভূমিমন্ত্রী যোগ করেন।

সাইফুজ্জামান চৌধুরীর সভাপতিত্বে ভূমি মন্ত্রণালয়ের সচিব মাক্ছুদুর রহমান পাটওয়ারীর পরিচালনায় সভায় ভূমি সংস্কার বোর্ডের চেয়ারম্যান মো. আবদুল মান্নান, ভূমি রেকর্ড ও জরিপ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. তসলীমুল ইসলাম, লক্ষ্মীপুরের জেলা প্রশাসক অঞ্জন চন্দ্র পাল, রামগতি উপজেলা চেয়ারম্যান শরাফ উদ্দিন আজাদসহ ভূমি মন্ত্রণালয়, স্থানীয় সরকার বিভাগ, গণপূর্ত অধিদপ্তর, স্থাপত্য অধিদপ্তরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।


ঢাকা/নঈমুদ্দীন/সাইফ