ঢাকা, বুধবার, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

রাজশাহী-রংপুরের পয়েন্ট ভাগাভাগি

আমিনুল ইসলাম : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৮-১১-০১ ৬:৪৮:৪০ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৮-১১-০১ ৯:০৯:৪৬ পিএম
রাজশাহী-রংপুরের পয়েন্ট ভাগাভাগি
ম্যাচসেরার পুরস্কার নিচ্ছেন সানজামুল ইসলাম
Walton E-plaza

ক্রীড়া প্রতিবেদক : ওয়ালটন ২০তম জাতীয় ক্রিকেট লিগের পঞ্চম রাউন্ডে একমাত্র রংপুরে পুরো চারদিন খেলা হয়েছে। রংপুর ও রাজশাহী বিভাগের চারদিনের ব্যাট বলের লড়াই আজ ড্রয়ের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে। এমন ড্রয়ে রংপুর পেয়েছে ৩.২ পয়েন্ট আর রাজশাহী পেয়েছে ২.৫ পয়েন্ট।

তাতে ৫ রাউন্ড শেষে ২৫.৩১ পয়েন্ট সংগ্রহ করে প্রথম স্তরের পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে অবস্থান করছে রংপুর বিভাগ। ২১.০৯ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে রাজশাহী বিভাগ। ১৩.১১ পয়েন্ট নিয়ে বরিশাল বিভাগ রয়েছে তৃতীয় স্থানে। আর ১৩.০৪ পয়েন্ট নিয়ে খুলনা বিভাগ রয়েছে পয়েন্ট টেবিলের তলানিতে।

 



রংপুরের ক্রিকেট গার্ডেনে রংপুর বিভাগ প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৩৩৬ রান সংগ্রহ করে। জবাবে রাজশাহী বিভাগ তাদের প্রথম ইনিংসে সংগ্রহ করে ২৪৮ রান। এরপর রংপুর বিভাগ ৮ উইকেট হারিয়ে ১৮৬ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করে। আর রাজশাহী বিভাগ ২ উইকেট হারিয়ে ১৩৩ রান তোলার পর ড্র মেনে নেয় উভয় দল।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :
রংপুর বিভাগ : ৩৩৬/১০ ও ১৮৬/৮ ডিক্লে.
রাজশাহী বিভাগ : ২৪৮/১০ ও ১৩৩/২।
ফল : ম্যাচ ড্র
পয়েন্ট : রংপুর ৩.২ ও রাজশাহী ২.৫।
ম্যাচসেরা : সানজামুল ইসলাম (রাজশাহী)।

 



১ উইকেট হারিয়ে ২০ রান তুলে তৃতীয় দিন শেষ করা রংপুর বিভাগ আজ বৃহস্পতিবার চতুর্থ দিনে ব্যাট করতে নামে। ৩৪ রানের মাথায় সোহরাওয়ার্দী শুভ ফিরে যান। ৬১ রানের মাথায় আউট হয়ে যান আগের দিন অপরাজিত থাকা ব্যাটসম্যান রাকিন আহমেদ (২৩)। এরপর চতুর্থ উইকেটে দলের হাল ধরেন মাহমুদুল হাসান ও ধীমান ঘোষ। তারা দুজন ৮১ রানের জুটি গড়েন। দলীয় ১৪২ রানের মাথায় মাহমুদুল হাসান ব্যক্তিগত ৪৫ রানে ফিরে যান। আর ১৪৬ রানের মাথায় হাফ সেঞ্চুরিয়ান ধীমান ঘোষও (৫১) আউট হন। এরপর ১৮২ রানে তিন-তিনটি উইকেট হারায় রংপুর। অবস্থা বেগতিক দেখে ১৮৬ রানে ইনিংস ঘোষণা করেন রংপুরের অধিনায়ক সাজেদুল ইসলাম।

রংপুরের যে ৮টি উইকেটের পতন ঘটেছে তার সমানভাবে ভাগ করে নিয়েছেন দেলোয়ার হোসেন ও সানজামুল ইসলাম। দেলোয়ার হ্যাটট্রিকসহ ৪ উইকেট নেন। আর সানজামুল নেন বাকি চারটি।

১৮৬ রানে ইনিংস ঘোষণা করায় রাজশাহীর সামনে জয়ের লক্ষ্যমাত্রা দাঁড়ায় ২৭৫ রান। সেই রান তাড়া করতে নেমে ১২ রানেই ২ উইকেট হারিয়ে বসে রাজশাহী। সেখান থেকে জুটি বেঁধে দলকে ১৩৩ রান পর্যন্ত টেনে নেন সাব্বির হোসেন ও ফরহাদ হোসেন। এরপর ড্র মেনে নেয় উভয় দল। ব্যাট হাতে রাজশাহীর সাব্বির হোসেন অপরাজিত ৬৬ ও ফরাহদ অপরাজিত ৫০ রান করেন।

 



১১ উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা নির্বাচিত হন রাজশাহীর বোলার সানজামুল ইসলাম। তিনি প্রথম ইনিংসে ৭ ও দ্বিতীয় ইনিংসে ৪টি উইকেট নেন।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১ নভেম্বর ২০১৮/আমিনুল

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন
       
Marcel Fridge