ঢাকা, মঙ্গলবার, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

গণতন্ত্র হত্যার মূলহোতা বিএনপি : আমু

রেজা পারভেজ : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৫-১৯ ৪:৫২:২৯ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৫-১৯ ৪:৫২:২৯ পিএম
গণতন্ত্র হত্যার মূলহোতা বিএনপি : আমু
Walton E-plaza

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : বিএনপিকে বাংলাদেশের নির্বাচন প্রক্রিয়া ও গণতন্ত্র হত্যার মূল হোতা হিসেবে দায়ী করেছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আমির হোসেন আমু।

রোববার দুপুরে রাজধানীর শাহবাগে বাংলাদেশ জাতীয় জাদুঘরের কবি সুফিয়া কামাল মিলনায়তনে এক সেমিনারে তিনি এই মন্তব্য করেন।

আমির হোসেন আমু বলেন বলেন, ‘এই দেশে আজ বারবার নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন আসে। এই নির্বাচনকে কিভাবে কলুষিত করা হলো। বাংলাদেশ সংবিধানের সামরিক আইন জারি করার কোনো বিধান নেই। সুতরাং সামরিক সরকার গঠন করার পর জিয়াউর রহমান, তার সরকারকে বৈধতা দেওয়ার জন্যই প্রয়োজন ছিল রেটিফিকেশনের। সেই রেটিফিকশনের করতে হলে দুই-তৃতীয়াংশ ম্যাজরিটি লাগে সংসদে। দুই-তৃতীয়াংশ ম্যাজরিটি নেওয়ার জন্য প্রথম জিয়াউর রহমান নির্বাচনী কারচুপির শুরু করে।’

‘এরশাদের আমলে আরো রেটিফিকশন করে ক্ষমতাকে কুক্ষিগত করা হয়। আজকে যারা বড় বড় কথা বলেন এ দেশে নির্বাচন প্রক্রিয়া হত্যা, গণতন্ত্র হত্যার মূল হোতাই তো তারা (বিএনপি)।’

শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন ও বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা’ শীর্ষক এই সেমিনারের আয়োজন করে আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা উপ-কমিটি।

আমির হোসেন আমু বলেন, ‘জিয়াউর রহমান দল ভাঙার রাজনীতি করতেন। রাজনীতিবিদদের জন্য রাজনীতি নয়, এটা তিনি স্টাবলিস্ট করতে চেয়েছিলেন। তিনি পরিস্কার বলেছিলেন আমি রাজনীতিবিদদের জন্য রাজনীতি কঠিন করে তুলবো। এটা তিনি বাস্তবায়নের কারসাজি করেছেন।

‘তিনি রাজনীতিবিদদের চরিত্র হরণ করা থেকে শুরু করে সব ধরনের ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ছিলেন। আওয়ামী লীগকে বারবার ভেঙেছেন। আওয়ামী লীগের কাউন্সিলকে ঘিরে আবার নতুন করে ভাঙার সুর বাজছিল। সেই মুহূর্তে দলীয় ঐক্য বজায় রাখতে শেখ হাসিনাকে সভাপতি নির্বাচিত করা হয়েছিল।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রশংসা করে তিনি বলেন,  ‘দেশী ও আন্তর্জাতিকভাবে যা কিছু অর্জন সবকিছুই শেখ হাসিনার নেতৃত্বে। শেখ হাসিনা আরামকে হারাম করে দেশের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছেন।’

তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক এবং তথ্য ও গবেষণা উপ-কমিটির সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি ড. হারুন-অর-রশিদ, বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ ড. জামাল উদ্দিন আহমেদ, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার সেমিনারের মূল প্রবন্ধ পাঠ করেন মুক্তিযুদ্ধ গবেষক ও লেখক হারুন হাবীব, সঞ্চালনায় ছিলেন আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য মারুফা আক্তার পপি।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/১৯ মে ২০১৯/রেজা/সাইফ

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন
       
Marcel Fridge