ঢাকা, শনিবার, ৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২৩ নভেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

সবজির চারা বিক্রিতে সাড়া ফেলেছেন হবিগঞ্জের রাজিব

মামুন চৌধুরী : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৬-০৯-২২ ৩:৩৬:৫৭ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-০৩-২০ ৪:১৭:৩৭ পিএম
রাজিবের উৎপাদিত সবজির চারা

মো. মামুন চৌধুরী, হবিগঞ্জ : হবিগঞ্জ সদর উপজেলার মশাজান বাজারের কাছে চোখে পড়বে বারমাসী সবজি চারার নার্সারি। গত এক বছরে এ নার্সারিটি থেকে প্রায় সাড়ে ৮ লাখ সবজি চারা বিক্রি হয়েছে।

প্রায় ১২০ শতক জমির উপর ২০১৩ সালে প্রতিষ্ঠিত এ নার্সারিটির নাম ‘রাজিব এগ্রো গার্ডেন’। এখান থেকে সূলভ মূল্যে চারা কিনে জমিতে রোপনের পর ভাল ফলন পাচ্ছেন কৃষকরা। এসব চারা রোপন করে চাষিরা অভাবনীয় সফলতা পেয়েছেন। অন্যদিকে নার্সারি মালিক রাজিবও আর্থিকভাবে লাভবান হয়েছেন।

প্রতিবারের মতো এবারও কৃষকরা চারা ক্রয় করছেন বলে জানালেন রাজিব এগ্রো গার্ডেনের মালিক সৈয়দ আব্দুল কাদির রাজিব। এ বছর তার নার্সারিতে ব্রুকলি (বেগুনী-হলুদ), কেপসিকাম (হলুদ-সবুজ), মিষ্টি লাউ, পানি লাউ, মাটি লাউ, করলা, চিচিঙ্গা, কুমড়া, মরিচ, টমেটো (কয়েক ধরনের), সাদা বেগুন, কালো বেগুন, ফুলকপি, বাঁধাকপিসহ ১৩ জাতের সবজির চারা উৎপাদন করেছেন। ১৩টি বিটে চাষ করা প্রায় ১২ লাখ সবজির চারা বিক্রির প্রস্তুত করে রাখা হয়েছে।

মশাজান বাজারে ব্যবসার সাথে এ নার্সারি পরিচালনা করে আর্থিকভাবে তিনি বেশ লাভবান।  আলাপকালে রাজিব জানান, বারমাস তার নার্সারি থেকে শত শত কৃষক সবজির চারা কিনে নিচ্ছেন। উন্নতজাতের বীজের এ চারায় ফলনও ভাল হচ্ছে। তিনি জানান, তার চারা ঘরের আশপাশে রোপন করে বছরজুড়েই ফসল তোলা যাবে।

সূত্র জানায়, জেলার বিভিন্নস্থানে নানা প্রজাতির ফলজ, বনজ, ঔষধি, ফুল গাছের নার্সারি থাকলেও সবজির নার্সারি এখানেই প্রথম নির্মাণ করেছেন সৈয়দ আব্দুল কাদির রাজিব।

পরিদর্শনকালে দেখা গেছে, এ নার্সারিতে ব্রুকলি, কেপসিকাম, ফুলকপি, টমেটোসহ ১৩ জাতের চারার সার্বক্ষণিক পরিচর্যা করা হচ্ছে। কৃষকরা এসেই এখান থেকে এ চারা ক্রয় করে নিয়ে যাবেন। শুধু চারা বিক্রি নয় বারমাসি সবজিও চাষ করা হচ্ছে। এর মধ্যে শিম ও লাউ অন্যতম। চাষ হচ্ছে পেঁপেঁও।

 

এ নার্সারির বৈশিষ্ট হলো, চারা তৈরি ও সবজি চাষে কোনপ্রকার বিষ প্রয়োগ হচ্ছে না। এখানে গাছের উর্বর শক্তি বৃদ্ধিতে কম্পোষ্ট সার, গোবর ও পোকা দমনে ব্যবহার হচ্ছে সেক্স ফেরুম্যান ফার্দ।

এ ব্যাপারে উপ-সহকারী কৃষি অফিসার মাহবুবুল হক বলেন- ‘সবজি চারা বিক্রি করতেই রাজিব নার্সারী গড়ে তুলেছে। আর এ নার্সারি থেকে শত শত কৃষক চারা ক্রয় করে চাষাবাদে ভাল ফলন পাচ্ছেন।’

হবিগঞ্জ কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপপরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) বশির উদ্দিন সরকার জানান, রাজিব একজন সাহসী চাষি। সে ব্যবসার সাথে নার্সারিতে সবজি চারা উৎপাদন করে সফলতা নিয়ে এসেছে।




রাইজিংবিডি/ হবিগঞ্জ/২২ সেপ্টেম্বর ২০১৬/মামুন/টিপু

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন