ঢাকা, শুক্রবার, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

নিরাপত্তা বৈঠকে প্রাধান্য পাবে সীমান্তে হত্যা, গরু পাচার

হাসান মাহামুদ : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৭-২৮ ৮:০১:৩৯ এএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৮-০১ ৮:৫২:২৪ পিএম

হাসান মাহামুদ : ভারতে টানা দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় আসার পর নরেন্দ্র মোদি সরকারের সঙ্গে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ে প্রথমবারের মতো নিরাপত্তা ইস্যুতে বাংলাদেশের বৈঠক হতে যাচ্ছে আগস্টের প্রথম দিকে। বৈঠকে ভারতের পক্ষ থেকে সীমান্তে অনুপ্রবেশ, কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে গরু পাচার, জাল নোটের কারবার এবং বাংলাদেশের পক্ষ থেকে সীমান্তে বিএসএফের হাতে মৃত্যুর ঘটনা নিয়ে আলোচনা প্রাধান্য পাবে।

কূটনৈতিক সূত্র জানিয়েছে, ভারতের এজেন্ডার বিপরীতে গরু আমদানি নিয়ে যে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে সে কথাও বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ভারতকে অবহিত করা হবে। এছাড়া, বৈঠকে নিরাপত্তা, সীমান্ত ব্যবস্থাপনা, অবৈধ ক্রিয়াকলাপ দমনে সহযোগিতা, অবৈধ অভিবাসন, চোরাচালান, রোহিঙ্গা সংকট এবং ভ্রমণ ব্যবস্থা সম্পর্কিতসহ দুই দেশের সব বিষয়ে আলোচনা হতে পারে বলে জানা গেছে।

সাবেক পররাষ্ট্রসচিব হেমায়েত উদ্দিন বলেন, কূটনৈতিকভাবে এখন আমরা (বাংলাদেশ) সক্ষম দেশ। বড় প্রতিবেশী নিয়ে গত কয়েক বছরে নীতিগতভাবে গুণগত একটি পরিবর্তন এসেছে। আমাদের দর-কষাকষির ক্ষমতা বেড়েছে। দুই দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠকটি প্রতিরক্ষা বিষয়ে খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

তিনি বলেন, সীমান্তের মৃত্যুর বিষয়ে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে কয়েক বছর ধরেই আলোচনা করা হচ্ছে। ভারত অঙ্গীকারও করছে। কিন্তু বিষয়টির সমাধান হয়নি। আসন্ন বৈঠকে বিষয়টি বাংলাদেশের আলোচ্যসূচিতে থাকলে একটি ফলপ্রসূ আলোচনা হতে পারে বলে আশা করি।

আগামী ৭ আগস্ট নয়াদিল্লিতে ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের দ্বিপক্ষীয় বৈঠক হবে। ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যকার চমৎকার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের একটি সুস্পষ্ট পর্যালোচনা করতে এবং দুই দেশের সম্পর্ক আরো জোরদার করতে আসন্ন বৈঠকটি সহযোগিতা করবে বলে আশা করছে পররাষ্ট্র এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

বৈঠক উপলক্ষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান তিন দিনের সফরে আগামী ৬ আগস্ট দিল্লি যাবেন। ৭ আগস্ট দুই স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বৈঠক হবে। ভারতের নতুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহর সঙ্গে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের এটিই প্রথম বৈঠক। বৈঠকের আগে দুই দেশের প্রতিনিধিরা বৈঠকে বসবেন।

জানা গেছে, মাদক ও মানবপাচারের মতো অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড কীভাবে দমন করা যায় সেসব বিষয়েও আলোচনা হতে পারে।

বৈঠকে অনুপ্রবেশ নিয়ে ভারত তথ্যসহ একটি ডসিয়ার বাংলাদেশের হাতে তুলে দেবে বলে জানা গেছে। এই ডসিয়ারে জানানো হবে, গত এক দশকে কীভাবে অনুপ্রবেশের ঘটনা ঘটেছে। অনুপ্রবেশ মোকাবিলায় বাংলাদেশের সাহায্য চাওয়া হবে বলে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন। এর পরিপ্রেক্ষিতেই আসামের এনআরসি নিয়েও আলোচনা হতে পারে।

কূটনৈতিক সূত্র জানিয়েছে, বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্কের উচ্চতা বজায় রেখে ভারতের পক্ষ থেকে এনআরসিতে চিহ্নিত বিদেশিদের ফেরত পাঠানোর বিষয়টি তুলে ধরার চেষ্টা হবে। পাশাপাশি ভারতে জেএমবির প্রভাব বৃদ্ধির বিষয়টি নিয়েও আলোচনা হতে পারে। এ ব্যাপারেও বাংলাদেশের হাতে একটি তথ্যসমৃদ্ধ ডসিয়ার তুলে দেওয়া হতে পারে। জঙ্গি সংগঠনের তৎপরতা বৃদ্ধি ঠেকাতে বাংলাদেশের সক্রিয় সহযোগিতাও চাওয়া হতে পারে।

বাংলাদেশের পক্ষে সীমান্তে বিএসএফের হাতে মৃত্যুর ঘটনা নিয়ে উদ্বেগ জানানো হতে পারে। গরু আমদানি নিয়ে যে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে সে কথাও বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ভারতকে অবহিত করা হবে। এছাড়া, বাংলাদেশের পক্ষ থেকে রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়েও আলোচনা হতে পারে বলে জানা গেছে।

ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে গোয়েন্দা তথ্য বিনিময় বাড়ানোর অঙ্গীকার রয়েছে। এছাড়া, ২০১৬ সালে দিল্লিতে অনুষ্ঠিত দুই দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠকে সন্ত্রাসবাদ মোকাবিলায় পারস্পরিক সহযোগিতাকে আরো নতুন নতুন ক্ষেত্রে সম্প্রসারিত করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বৈঠকের পর ভারত জানায়, সন্ত্রাসবাদ, মৌলবাদ ও র‍্যাডিক্যালাইজেশনের বিরুদ্ধে বাংলাদেশের লড়াইতে তারা আরও বেশি করে সমর্থন দেবে। তা ছাড়া দুই দেশের পলাতক আসামিদের যাতে পরস্পরের হাতে তুলে দেয়ার প্রক্রিয়াকে আরো সহজ করার বিষয়েও দুই পক্ষ একমত হয় আগের বৈঠকগুলোতে। আসন্ন দ্বিপাক্ষিক বৈঠকেও বিষয়গুলো আলোচনায় আসতে পারে।

প্রসঙ্গত, দুই দেশের মধ্যে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের ষষ্ঠ দ্বিপাক্ষিক বৈঠক গত বছর ১৩ থেকে ১৫ জুলাই ঢাকায় অনুষ্ঠিত হয়। ওই বৈঠকে ভারতের পক্ষে ওই সময়ের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং প্রতিনিধিত্ব করেন। ওই বৈঠকে নিরাপত্তা, সীমান্ত ব্যবস্থাপনা, অবৈধ ক্রিয়াকলাপ দমনে সহযোগিতা এবং ভ্রমণ ব্যবস্থা সম্পর্কিত বিষয়ে আলোচনা হয়।



রাইজিংবিডি/ঢাকা/২৭ জুলাই ২০১৯/হাসান/রফিক

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন