ঢাকা, সোমবার, ৭ শ্রাবণ ১৪২৬, ২২ জুলাই ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়ার জেরে বন্ধুকে খুন

এম এ মামুন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৭-১০-০২ ৭:২৪:১৮ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৭-১০-০২ ৭:২৪:১৮ পিএম
স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়ার জেরে বন্ধুকে খুন
Voice Control HD Smart LED

চুয়াডাঙ্গা সংবাদদাতা : চুয়াডাঙ্গার সদর উপজেলায় স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়ার জেরে বন্ধুকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

উপজেলার খাসপাড়া গ্রামের মোতালেব সরকারের ছেলে রিপনকে রোববার গভীর রাতে কুপিয়ে খুন করা হয়। সোমবার বিকেলে খুনের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগ বন্ধু মঈন উদ্দীনসহ পাঁচজনকে আটক করেছে পুলিশ।  

চুয়াডাঙ্গার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আব্দুল মোমেন জানান, খাসপাড়া গ্রামের সামছুদ্দিনের ছেলে মঈন উদ্দীনের সঙ্গে প্রতিবেশী ও দূর-সম্পর্কের মামাত ভাই রিপনের বন্ধুত্ব ছিল। মঈন উদ্দীন মালয়েশিয়া যাওয়ার সময় তার পরিবারের খোঁজ-খবর রাখতে বলেন রিপনকে।

কয়েক মাস আগে মঈন উদ্দীনকে তার বাবা জানান, তার স্ত্রী মৌসুমীর সঙ্গে রিপন পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়েছেন। বাবার মুখে এ কথা শুনে মঈন উদ্দীন বিদেশ থেকে রিপনকে কয়েকবার হুমকি দেন।

মঈন উদ্দিন বাড়ি এসেও হুমকি অব্যাহত রাখলে গ্রাম্য সালিশে উভয়ের মধ্যে মিল করিয়ে দেওয়া হয়। কিন্তু মঈন উদ্দীন বিষয়টি ভুলতে পারেননি।

রোববার রাত ১২টার দিকে রিপন গ্রামের চায়ের দোকান থেকে বাড়ি ফিরছিলেন। পথিমধ্যে রিপনের ঘাড়ে ও মাথায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করেন মঈন উদ্দীন। এতে তার মৃত্যু হলে লাশ রাস্তার ধারের ডোবায় ফেলে দেন। সকালে স্থানীয়রা রিপনের লাশ দেখে খবর দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।

পুলিশ সন্দেহভাজন হিসেবে মঈন উদ্দীনের বাবা সামছুদ্দিন, স্ত্রী মৌসুমীসহ চারজনকে আটক করে। মঈন উদ্দীন দুপুরে মোবাইল ফোনে পুলিশকে জানান, তিনি রিপনকে হত্যা করেছেন। তার পরিবারের সদস্যদের যেন ছেড়ে দেওয়া হয়। পুলিশ মোবাইল ফোন ট্রেকিং করে মঈন উদ্দীনকে জীবননগর শহর থেকে গ্রেপ্তার করেছে।  

পুলিশ জানিয়েছেন, গ্রেপ্তারের পর রিপনকে হত্যার কথা স্বীকার করেছেন মঈন উদ্দীন। স্ত্রী মৌসুমীর সঙ্গে পরকীয়ার কারণে তিনি রিপনকে খুন করেছেন।



রাইজিংবিডি/চুয়াডাঙ্গা/২ অক্টোবর ২০১৭/এম এ মামুন/বকুল

Walton AC
ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন
       

Walton AC
Marcel Fridge