ঢাকা, বুধবার, ৫ ভাদ্র ১৪২৬, ২১ আগস্ট ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

২০০ রুপির ম্যাচ থেকে যেভাবে ভারতীয় দলে সাইনি

আবু হোসেন পরাগ : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৭-২২ ১০:২৭:০৭ এএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৭-২২ ১০:০৫:০৬ পিএম
২০০ রুপির ম্যাচ থেকে যেভাবে ভারতীয় দলে সাইনি
নবদীপ সাইনি
Walton E-plaza

ক্রীড়া ডেস্ক : ২০১৯ আইপিএলের প্রথম ম্যাচ। রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর দেওয়া ৭১ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে চেন্নাই সুপার কিংস। শুরুতেই ১৫১ কিলোমিটার গতির একটা বাউন্সার এসে লাগল শেন ওয়াটসনের হেলমেটে। অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান পুল করতে গিয়ে গতির কাছে শুধু পরাস্তই হলেন না, পড়ে গেলেন মাটিতে। বোলারের নাম নবদীপ সাইনি- যিনি উঠে এসেছেন হরিয়ানার কার্নালের রাস্তা থেকে।

গত ছয় বছর ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটের নিয়মিত পারফরমার সাইনি। ২০১৯ আইপিএলে সবাইকে মুগ্ধ করেছেন তার ১৫০ কিলোমিটারের বেশি গতি দিয়ে। ওয়েস্ট ইন্ডিজে ভারত ‘এ’ দলের চলমান সিরিজেও দুর্দান্ত করছেন। প্রথম আনফিসিয়াল ওয়ানডেতে ৪৬ রানে নেন ৫ উইকেট। ২৬ বছর বয়সি পেসার তার ধারাবাহিক পারফরম্যান্সের পুরস্কার পেলেন রোববার। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে ভারতের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি দলে নেওয়া হয়েছে তাকে।

তার ভারতীয় দলে আসার জার্নিটা যেন একটা রোলারকোস্টারের মতো। ২০১৩ সাল পর্যন্ত কখনো ক্রিকেট বলে খেলেননি। বয়সভিত্তিক কোনো দলেও ছিলেন না। কার্নালের স্থানীয় টুর্নামেন্টে খেলতেন টেনিস বলের ক্রিকেটে। যেখানে ম্যাচপ্রতি পেতেন মাত্র ২০০ রুপি।

তাকে কার্নাল প্রিমিয়ার লিগে খেলতে দেখে গতিতে মুগ্ধ হন দিল্লির প্রাক্তন পেসার সুমিত নরওয়াল। তিনিই সাইনিকে নিয়ে আসেন দিল্লিতে। দিল্লির নেটে সাইনির পেসে পরাস্ত হন গৌতম গম্ভীর। মুগ্ধ হয়ে গম্ভীর সাইনিকে উপহার দেন এক জোড়া বুট, সেই সঙ্গে নিয়মিত আসতে বলেন দিল্লির নেটে। দিল্লির ক্রিকেটে সাইনির প্রাথমিক যাত্রা শুরু সেটিই। দিল্লির অধিনায়ক গম্ভীর তাকে রঞ্জি ট্রফির দলে নিতে নিয়ে আসেন নির্বাচকদের কাছে। গম্ভীরের প্রচেষ্টা হয় সফল। সাইনিকে অন্তর্ভুক্ত করা হয় ২০১৩-১৪ মৌসুমের রঞ্জি ট্রফির দিল্লি দলে।

এরপর আর তাকে পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। ২০১৭-১৮ মৌসুমে দিল্লিকে রঞ্জির ফাইনালে তুলতে বড় অবদান ছিল সাইনির। আট ম্যাচে দলের হয়ে নিয়েছিলেন সর্বোচ্চ ৩৪ উইকেট। সেমিফাইনালে দেখিয়েছিলেন তার সেরা পারফরম্যান্স। বেঙ্গলের বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ৫৫ রানে ৩ উইকেট নেওয়ার পর দ্বিতীয় ইনিংসে ৩৫ রানে ৪ উইকেট। বেঙ্গল গুটিয়ে যায় ৮৬ রানে, দিল্লি জেতে ইনিংস ব্যবধানে। সেবার দিল্লিতে গম্ভীরের অধীনেই খেলেছেন সাইনি।

‘যখনই আমি গম্ভীরের সঙ্গে কথা বলি, আমি আবেগী হয়ে পড়ি। এমনকি দিল্লি দলে আমার প্রথম কিছু ম্যাচের সময় তিনি বলতেন, যদি আমি প্রতি অনুশীলন সেশনে কঠোর পরিশ্রম করি, তাহলে আমি ভারতের হয়ে খেলব। আমি নিজেকে বোঝার আগেই তিনি আমার মধ্যে এটা দেখেছিলেন। যখন আমি পেছনে ফিরে তাকাই, আমি শুধু হাসি- গত বছরের জুনে আফগানিস্তানের বিপক্ষে একমাত্র টেস্টে প্রথমবারের মতো ভারতীয় দলে ডাক পাওয়ার পর বলেছিলেন সাইনি।

এবার স্বপ্নের অভিষেকের অপেক্ষা!

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/২২ জুলাই ২০১৯/পরাগ

Walton AC
ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন
       

Walton AC
Marcel Fridge