ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৬ চৈত্র ১৪২৬, ০৯ এপ্রিল ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

হারের জন্য ব্যাটিং ব্যর্থতাকে দায় আরভিনের

ক্রীড়া প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০২-২৫ ৮:১৪:৩৩ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০২-২৫ ৮:১৪:৩৩ পিএম

বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথমবারের মতো ইনিংস ব্যবধানে পরাজয়। এজন্য দলের ব্যাটিং ইউনিটকে দুষছেন জিম্বাবুয়ে দলের অধিনায়ক ক্রেইগ আরভিন।

বাংলাদেশের বিপক্ষে মিরপুরের একমাত্র টেস্ট ইনিংস ও ১০৬ রানে হারে সফরকারি জিম্বাবুয়ে। বাংলাদেশ যেখানে এক ইনিংস ব্যাটিং করে ৬ উইকেট হারিয়ে ৫৬০ রান তোলে। সেখানে জিম্বাবুয়ে দুই ইনিংস মিলিয়ে করে ৪৫৪ রান। সংবাদ মাধ্যমে আরভিন ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতা নিয়ে বলেন,

‘শুরুতে ব্যাটিং করে আমাদের কমপক্ষে ৪০০ রান করা উচিত ছিল। রান করার জন্য উইকেট বেশ ভালো ছিল। প্রথম ইনিংসে ২৬৫ রানে অলআউট হয়ে আমরা ব্যাকফুটে পড়ে যাই। আর বাংলাদেশকে সুযোগ করে দেই আমাদের ছাড়িয়ে যাওয়ার। দ্বিতীয় ইনিংসেও আমরা আরও ভালো করতে পারতাম। উইকেট এখনো ব্যাটিং করার জন্য অত খারাপ হয়নি। আমাদের ম্যাচ থেকে ছিটকে দিয়েছে ব্যাটিং।’

অনভিজ্ঞ বোলিং অ্যাটাক নিয়ে টেস্ট খেলতে নেমেছে বলে দাবি করেন অধিনায়ক আরভিন। তবে বোলাররা টাইগার ব্যাটসম্যানদের উপর কোনো প্রকার চাপ তৈরি করতে পারেনি জানিয়ে বলেন, ‘আমরা অনভিজ্ঞ বোলিং আক্রমণ নিয়ে মাঠে নেমেছি। টাসুমা প্রথম ম্যাচ খেলতে নেমেছে। ভিক্টর নেমেছে তৃতীয় ম্যাচ খেলতে। এখানে অভিজ্ঞ কেবল টিরিপানো। তবে এনদোভু যা একটু ভালো খেলেছে। তবে আমরা লম্বা সময় ধরে সঠিক জায়গায় বল ফেলতে পারিনি। ফলে প্রতিপক্ষের উপর চাপ সৃষ্টি করতে পারিনি। তাই আমাদের বাংলাদেশের ৬ উইকেট নিতে কষ্ট করতে হয়েছে।’

তবে বাংলাদেশের বোলারদের প্রশংসা ছিল জিম্বাবুয়ে অধিনায়কের কণ্ঠে, ‘নাঈম দুর্দান্ত বোলিং করেছে। সে ধারাবাহিক ভাবে ভালো করেছে। বল ভালো ড্রিফট করাচ্ছিল আর ভেতরেও ঢুকাচ্ছিল। সে আর তাইজুল সহজে রান দিচ্ছিল না।’

এ ম্যাচে দলকে উদ্ধারের জন্য ব্যাট হাতে প্রথম ইনিংসের মতো আজও সেঞ্চুরির সুযোগ ছিল বলে মনে করেন আরভিন। তবে আজ নিজে যেমন ইনিংস লম্বা করতে পারেননি। একইভাবে খেলোয়াড়রাও পরিকল্পনায় ভুল করেন বলে মনে করেন সফরকারি অধিনায়ক।

‘যখন আমি আর রাজা ভালো ব্যাটিং করছিলাম। মনে হচ্ছিলো মোমেন্টাম আমাদের পক্ষে ছিল। তারপর আমরা এটি বাংলাদেশকে দিয়ে দেই। আমি টেস্টের দুই ইনিংসে সেঞ্চুরি পেতে চাইতাম। আজ সম্ভবত সেরা সুযোগ ছিল। তবে আমরা পরিকল্পনা প্রয়োগ করতে পারেনি। আগে ঢাকায় ব্যাটিং করাটা কঠিন ছিল। সম্ভবত ছেলেরা টার্ন হবে ভেবে একটু বেশি শট খেলে ফেলেছে।’

এদিকে নিয়মিত অধিনায়ক শন উইলিয়ামসকে দল মিস করেছে জানিয়ে আরভিন আরো যোগ করেন, ‘উইলিয়ামস আমাদের দলে অনেক বড় ভূমিকা পালন করে। সে ব্যাট, বল এবং ফিল্ডিং দিয়ে অবদান রাখে। আমরা এ ম্যাচে তাকে অনেক বেশি মিস করছি।’

এদিকে জিম্বাবুয়ে সর্বশেষ সিলেট সফরে টেস্টে জয় দেখে। তবে রঙিন পোষাকে সেখানে কোনো ম্যাচ খেলতে নামেনি তারা। তবে ক্রিকেটাররা সাদা বলের ক্রিকেট খেলার জন্য উন্মুখ হয়ে আছেন জানিয়ে আরভিন বলেন, ‘আমরা এখন সিলেট যাবো। যেখানে আমরা এর আগে কোনো ওয়ানডে ম্যাচ খেলিনি। সেখানে আমাদের টেস্টে সাফল্য আছে। সম্প্রতি আমরা সাদা বলের ক্রিকেট তেমন খেলিনি। তবে ক্রিকেটারা রঙিণ পোষাকে খেলতে উদগ্রীব হয়ে আছে।’


ঢাকা/কামরুল