ঢাকা     মঙ্গলবার   ০৪ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ১৯ ১৪২৭ ||  ১৪ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

risingbd-august-banner-970x90

ইংল্যান্ডের রক্ষণ গুঁড়িয়ে শেষ বিকেলে উইন্ডিজ পেসারদের তাণ্ডব

ক্রীড়া ডেস্ক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৯:১৫, ১১ জুলাই ২০২০  

ইংল্যান্ড-ওয়েস্ট ইন্ডিজের মধ্যে প্রথম টেস্টের চতুর্থ দিন শেষে চালকের আসনে সফরকারী ক্যারিবিয়ানরা। প্রথম ইনিংসে ১১৪ রানে পিছিয়ে থাকা ইংল্যান্ড নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে ভালোই জবাব দিচ্ছিল। টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানের ব্যাটে ভর করে বড় লিডের আশাও দেখছিল। তবে চতুর্থ দিনের তৃতীয় সেশনে উইন্ডিজ পেসারদের তাণ্ডবে সেই সম্ভাবনা ফিকে হয়ে গেছে। শেষ বিকেলে ১২ ওভারে ৩০ রানের বিনিময়ে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের পাঁচ উইকেট তুলে নিয়ে সুবিধাজনক অবস্থানে রয়েছে ক্যারিবিয়ানরা।

চতুর্থ দিন শেষে ইংল্যান্ড থেকে ১৭০ রানে পিছিয়ে সফরকারি দলটি। তবে লিড খুব বেশিদূর নেওয়ার সম্ভাবনা নেই স্বাগতিকদের সামনে। হাতে দুই উইকেট থাকা ইংল্যান্ডের টেল এন্ডার জোফরা আর্চার ৫ এবং মার্ক উড ১ রান নিয়ে মাঠে আছেন। এদিকে নিজেদের তৃতীয় ইনিংসে এখন পর্যন্ত ২৮৪/৮ সংগ্রহ দাঁড় করিয়েছে ইংল্যান্ড। শেষদিন সকালে টেল এন্ডাররা লিডে কত রান যোগ করতে পারে সেটি দেখার বিষয়।

চতুর্থ দিন দলীয় ১৫ রান নিয়ে ব্যাটিংয়ে আসা দুই ওপেনার বার্নস ও সিবলি দারুণ শুরু করেন। ইংলিশ ওপেনারদের ৭২ রানের জুটি ভাঙেন ক্যারিবিয়ান অফস্পিনার চেজ। ৪২ রান করা বার্নসকে ক্যাম্পবেলের তালুবন্দি করেন তিনি। অপর ওপেনার সিবলি অর্ধশতক ছুঁয়ে গ্যাব্রিয়েলের বলে উইকেটরক্ষক ডোরিচের ক্যাচ হয়ে ফেরেন দলীয় ১১৩ রানে।

প্রথম ইনিংসের মতো দ্বিতীয় ইনিংসেও সুবিধা করতে পারেননি তিনে নামা ডেনলি। ২৯ করে ফেরেন চেজের বলে। এরপরে ব্যাট হাতে ইংলিশ অধিনায়ক স্টোকসকে নিয়ে দারুণভাবে এগুতে থাকেন ক্রলে। এই দুইজন গড়েন ৯৮ রানের জুটি। এই জুটি ভাঙার আগে ইংলিশদের লিড দাঁড়ায় ১৩৫ রানে।

বড় টার্গেট দেওয়ার আশায় থাকা ইংলিশদের এরপর নাড়িয়ে দেন উইন্ডিজ পেসাররা। শেষ বিকালে আর ৩৫ রান তুলতে নেই ইংল্যান্ডের ৫ উইকেট। যার শুরু স্টোকসকে দিয়ে। দলীয় ২৪৯ রানে ক্যারিবিয়ান অধিনায়ক হোল্ডারের বলে আউট হওয়ার আগে ইংলিশ দলপতি করেন ৪৬ রান। স্টোকসের বিদায়ের পরের ওভারে জোসেফের বলে দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৭৬ রান করে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন ক্রলেও।

এরপর আসা যাওয়ার মিছিলে মেতে ওঠেন বাটলার (৯), পোপে (১২) এবং বেস (৩)। ২৪৯/৩ থেকে এক পর্যায়ে ইংলিশদের স্কোর দাঁড়ায় ২৭৯/৮। এরপর আর ৫ রানের নিরবিচ্ছিন্ন জুটি গড়ে দিন পার করেছেন আর্চার ও উড। উইন্ডিজদের পক্ষে গ্যাব্রিয়েল ৬২ রানে ৩টি এবং চেজ ও জোসেফ ২টি করে উইকেট শিকার করেছেন।

উইন্ডিজ কিংবদন্তি ব্রায়ান লারা সাউদাম্পটন টেস্ট শুরুর আগে বলেছিলেন, ‘ওয়েস্ট ইন্ডিজের এই টেস্ট জিততে হলে চারদিনের মধ্যে ম্যাচ শেষ করতে হবে।’ তবে বৃষ্টি বাধায় সেটি সম্ভব হয়নি সফরকারিদের পক্ষে। ম্যাচ পাঁচদিনে গড়ালেও জয়ের ভালো সুযোগ তৈরি করেছে জেসন হোল্ডাররা। শেষ দিন সাউদাম্পটনে নতুন কোনো রোমাঞ্চ তৈরি হয় নাকি ভালো খেলে স্বাগতিকদের হারিয়ে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে যায় ক্যারিবিয়ানরা সেটি দেখার বিষয়।

 

ঢাকা/কামরুল

রাইজিংবিডি.কম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়