ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১ কার্তিক ১৪২৬, ১৭ অক্টোবর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

রিফাত হত্যা : আসামিদের গ্রেপ্তারে সাঁড়াশি অভিযান

মাকসুদুর রহমান : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৬-২৭ ২:০১:২৪ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৬-২৭ ৩:০৩:৩৪ পিএম

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক : বরগুনায় প্রকাশ্য দিবালোকে রিফাত শরীফকে (২৫) কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় পলাতক ও এজাহারভুক্ত আসামিদের গ্রেপ্তারে সাঁড়াশি অভিযান চালাচ্ছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার সকালে গ্রেপ্তার হওয়া চন্দনের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে অভিযান চালাচ্ছে জেলা পুলিশ।

গতকাল বুধবার নিহত রিফাতের বাবা ১২ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাত পাঁচ-ছয়জনকে আসামি করে বরগুনা সদর থানায় হত্যা মামলা করেন।

বরগুনার পুলিশ সুপার মারুফ হোসেন মুঠোফোনে রাইজিংবিডিকে বলেন, মামলায় প্রধান আসামি করা হয়েছে হত্যাকাণ্ডের মূল হোতা সাব্বির হোসেন নয়ন ওরফে নয়ন বন্ডকে। দুই নম্বর আসামি রিফাত ফরাজি, তিন নম্বর আসামি রিশান ফরাজি, চার নম্বর আসামি চন্দন। চন্দনের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে বাকিদেরও শিগগিরই গ্রেপ্তার করা হবে। পুলিশের সঙ্গে গোয়েন্দারা মাঠে কাজ করছেন। চন্দনের বিষয়ে এখনো বিস্তারিত জানা যায়নি।

রাইজিংবিডির প্রশ্নের জবাবে পুলিশের ওই কর্মকর্তা বলেন, স্ত্রীকে উত্ত্যক্ত করার প্রতিবাদ করায় এ ঘটনা ঘটেছে বলে আমরা জানতে পেরেছি।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আয়শা আক্তার মিন্নির সঙ্গে দুই মাস আগে রিফাত শরীফের বিয়ে হয়। বুধবার রিফাত ও তার স্ত্রী সকাল ১০টার দিকে বরগুনা সরকারি কলেজের সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় সন্ত্রাসীরা রাম দা নিয়ে রিফাতের ওপর চড়াও হয়।

রিফাতের বাবার বরাত দিয়ে বরগুনা পুলিশ জানায়, নয়ন প্রতিনিয়ত আয়শা আক্তার মিন্নিকে উত্যক্ত করত এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আপত্তিকর পোস্ট দিত। এর প্রতিবাদ করায় নয়ন তার দলবল নিয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে রিফাতকে হত্যা করেছে।

মামলার অন্যতম আসামি রিফাত ফরাজির বিষয়ে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, মাদক ব্যবসা, মাদক সেবন ও ছিনতাইসহ নানা অপকর্মে যুক্ত খুনি রিফাত ফরাজি। নানা কারণে স্থানীয়দের ওপর হামলা, মারধর করা ছিল রিফাতের কাছে নিত্যনৈমিত্তিক ব্যাপার। রিফাতকে কয়েকবার গ্রেপ্তার করা হয়। কিন্তু সে প্রতিবারই জেল থেকে বের হয়ে ভয়ংকর রূপ ধারণ করে। 

 

 

রাইজিংবিডি/ঢাকা/২৭ জুন ২০১৯/মাকসুদ/রফিক

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন