ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৩ চৈত্র ১৪২৬, ০৭ এপ্রিল ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

৫ চীনা শ্রমিক কয়লা খনিতে যোগ দেবেন আজ

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০২-০৭ ৮:৪৬:২৭ এএম     ||     আপডেট: ২০২০-০২-০৭ ১০:১৯:১৮ এএম

দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির ৩৩২ জন চীনা কর্মকর্তা-কর্মচারী পরিবার করোনা ভাইরাস ছড়ানো আতঙ্কে কাজ করে যাচ্ছেন।

সম্প্রতি ছুটি শেষে চীন থেকে খনিতে ফিরে আসা ৫ শ্রমিকের ১৫ দিনের পর্যবেক্ষণ শেষ হয়েছে বৃহস্পতিবার। শনিবার তারা কাজে যোগ দেবেন। তাদের কারো দেহে করোনা ভাইরাসের জীবানু পাওয়া যায়নি। তবে তাদেরকে মাকস পরে কাজ করতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। অপর দিকে খনিতে কর্মরত ৩৩২ জন শ্রমিক-কর্মচারী তাদের পরিবার পরিজন নিয়ে উদ্বিগ্ন থাকলেও কাজে কোনো দায়িত্বহীনতা নেই বলে জানিয়েছে খনি কর্তৃপক্ষ।

বড়পুকুরিয়া খনির ব্যবস্থাপনা পরিচালক কামরুজ্জামান খান জানিয়েছেন, সম্প্রতি ৫ জন শ্রমিক চীন থেকে দেশে ফিরেছে। তাদের ঢাকা থেকে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের একটি টিম এসে পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য ১৫ দিন পর্যবেক্ষণে রাখেন। তাদের শরীরে করোনা ভাইরাসের নমুনা পাওয়া যাযনি। তাদের কাজে যোগদানের অনুমতি দেয়া হয়েছে। তারা শনিবার থেকে কাজে যোগ দেবেন।

জানা গেছে, বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান চীনের এক্স এমসির অধীনে চীনের প্রায় সাড়ে ৩’শ কর্মকর্তা-কর্মচারী কর্মরত আছেন। চীন থেকে গত ২০ জানুয়ারি ছুটি শেষে ডিজিএম গমোজসহ ৫ কর্মচারী খনিতে ফিরে আসেন। চীনে করোনা ভাইরাস সংক্রমণের আতঙ্কে থাকায় তাদের কাজে যোগদানের অনুমতি না দিয়ে খনির অভ্যন্তরে হাসপাতালে সম্পূর্ণ আলাদাভাবে রাখে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান।

দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ডা. আব্দুল কুদ্দুছ জানান, ২০ জানুয়ারি চীন থেকে আসা কর্মকর্তা-কর্মচারীকে কয়লা খনির অভ্যন্তরের হাসপাতালে নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছিল। তাদের মধ্যে করোনাভাইরাসের লক্ষণ পাওয়া যায়নি।

কামরুজ্জামান আরো জানান, খনিতে যেসমস্ত চীনা কর্মকর্তা ও শ্রমিক কাজ করছেন, তাদের এখন চীনে যেতে বারণ করা হচ্ছে। কেউ গিয়ে ফেরত আসলে তাকে পর্যবেক্ষণে রাখা হবে।

 

রংপুর/নজরুল/মাহি

     
 

আরো খবর জানতে ক্লিক করুন : রংপুর, রংপুর বিভাগ