ঢাকা, সোমবার, ২৩ চৈত্র ১৪২৬, ০৬ এপ্রিল ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

বাউল সম্রাট শাহ্ আব্দুল করিমের জন্মবার্ষিকী আজ

আল আমিন : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০২-১৫ ৭:৩২:৩০ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০২-১৫ ৭:৩৪:৫৭ পিএম

বসন্ত বাতাসে সইগো বসন্ত বাতাসে, কেন পিরিতি বাড়াইলারে বন্ধু, বন্দে মায়া লাগাইছে, সখী কুঞ্জ সাজাও গো, আগে কি সুন্দর দিন কাটাইতাম, গাড়ি চলে না, আমি কূলহারা কলঙ্কিনী, কেমনে ভুলিবো আমি বাঁচি না তারে ছাড়া প্রভৃতি জনপ্রিয় গানের স্রষ্টা শাহ আব্দুল করিম।

বাউল সম্রাট নামে খ‌্যাত একুশে পদকপ্রাপ্ত লোকশিল্পী আব্দুল করিমের ১০৪তম জন্মবার্ষিকী আজ।

১৯১৬ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি সুনামগঞ্জর দিরাই উপজেলার উজানধল গ্রামের কালনী নদীর তীরে জন্মগ্রহণ করেন এই বাউল। তার বাবা ইব্রাহিম আলী ও মা নাইওরজান। মৃত্যু আগ পর্যন্ত মানুষকে আনন্দ দেবার পাশপাশি সমাজ ও রাষ্ট্রের নানা অসঙ্গতির কথা গানে গানে জানিয়ে গেছেন এই চারণকবি।

নিলোর্ভ-নিরহংকার কিংবদন্তিতুল্য এই শিল্পী ২০০৯ সালের ১২ সেপ্টেম্বর ৯৩ বছর বয়সে মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুর পর সর্বস্তরের বিশেষ করে সাধারণের কাছে আরো বেশি জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন।তিনি। 

এদিকে বাউল শাহ্ আব্দুল করিমের জন্মদিন উপলক্ষে উজান ধলের বাড়িতে শনিবার দুপুরে মিলাদ মাহফিল, শিরনি বিতরণ হয় এবং সন্ধ্যার পর থেকে বসে বাউল আসর।

গানে মুগ্ধ হয়ে তাকে বাউলরাই সম্রাটের উপাধি দেন। তিনি ভাষার আন্দোলন, ও মুক্তিযুদ্ধ সময় প্রেরণা ও গণসংগীত গেয়ে গেয়ে মুক্তিকামী মানুষকে উজ্জীবিত করেছেন। পেয়েছেন একুশে পদক। গান গাওয়ার জন্য ধর্মান্ধদের হাতে নির্যাতিত ও ঘর ছাড়া হলেও কিংবদন্তিতুল্য মানুষটি অসাম্প্রদায়িকতার জয়গান প্রচার করে গেছেন। তার গানের মধ্যে দিয়ে তাঁকে খুজতে প্রতিদিন ভক্ত ও স্বজনরা গানের আসর বসান। তার গান গেয়ে তার প্রতি শ্রদ্ধা আর গানের মধ্যে তাঁকে বাঁচিয়ে রাখতেই সবার মাঝে তার গান ছড়িয়ে দিতে চান ভক্ত আশেকানরা।

শাহ আব্দুল করিম স্মৃতি পরিষদের সভাপতি আপেল মাহমুদ বলেন, ‘স্থানীয় সাংস্কৃতিক সংগঠকদের মতে শাহ্ আব্দুল করিমের বাড়িতে একটি জাদুঘর ও তাঁর সমাধী সৌধ নির্মিত হওয়ায় খুশী বাউলরা। জাদুঘরে এসে শাহ্ আব্দুল করিমকে জানতে পারছে নতুন প্রজন্ম।

বাউল সম্রাটের একমাত্র পুত্র নূর জালালের দাবি, বাড়িতে সঙ্গীত বিদ্যালয় স্থাপন ও বাউল শাহ্ আব্দুল করিম কমপ্লেক্স তৈরি হোক। তিনি মনে করেন, এই দাবি পূরণ হলে বাউল ভক্তদের থাকার ব্যবস্থা হবে।


সুনামগঞ্জ/আল আমিন/সাজেদ

     
 

আরো খবর জানতে ক্লিক করুন : সুনামগঞ্জ, সিলেট বিভাগ