ঢাকা     শনিবার   ০৮ আগস্ট ২০২০ ||  শ্রাবণ ২৪ ১৪২৭ ||  ১৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

উপ-নির্বাচন না পেছালে অংশ নেবে না বিএনপি

নিজস্ব প্রতিবেদক || রাইজিংবিডি.কম

প্রকাশিত: ১৩:১৩, ৭ জুলাই ২০২০  

বগুড়া-১ ও যশোর-৬ আসনের উপ-নির্বাচন না পেছালে নির্বাচনে অংশ নেবে না বিএনপি।

মঙ্গলবার (৭ জুলাই) নির্বাচন ভবনে নির্বাচন কমিশনের সিনিয়র সচিব মো. আলমগীরের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল। বৈঠক শেষে ইসি থেকে বের হওয়ার সময় তিনি সাংবাদিকদের এ কথা জানান।   

মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল জানন, আজ ইসি সচিবের সঙ্গে সাক্ষাৎকালে সিইসি বরাবর বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের একটি চিঠি হস্তান্তর করা হয়েছে।

মির্জা ফখরুলের দেওয়া চিঠিতে বলা হয়েছে, ‘বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন আগামী ১৪ জুলাই জাতীয় সংসদের বগুড়া-১ ও যশোর-৬ আসনে নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে। কিন্তু আপনি অবহিত আছেন যে, বর্তমানে বাংলাদেশসহ সারা বিশ্বে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) মহামারি ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। বাংলাদেশে এ ভাইরাসের সংক্রমণ ও মৃত্যুর সংখ্যা প্রতিনিয়ত আশঙ্কাজনকভাবে বৃদ্ধি পাচ্ছে। এছাড়া দেশের উত্তরবঙ্গে বন্যা পরিস্থিতি ভয়াবহ রূপ ধারণ করেছে। এ অবস্থায় নির্বাচন কমিশন কর্তৃক জাতীয় সংসদের দুটি আসনে আগামী ১৪ জুলাই উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠানের ঘোষণায় বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল (বিএনপি) গভীরভাবে ক্ষুব্ধ ও স্তম্ভিত। আমরা নির্বাচন কমিশনের উল্লিখিত উপ-নির্বাচনের ভোটগ্রহণের এ সিদ্ধান্তকে সম্পূর্ণ অযৌক্তিক ও অগ্রহণযোগ্য বলে মনে করি। নির্বাচন কমিশনের এ ধরনের পদক্ষেপ জনস্বাস্থ্যের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর ও চরম হুমকি স্বরূপ। সে কারণে জনস্বাস্থ্যকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব বিবেচনায় আমরা এ দুটি উপ-নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। তাই জনস্বার্থ বিবেচনায় কমিশনের সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার জন্য আপনার দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।’

মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল বলেন, ‘করোনার এই সময়ে আমরা নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। তাই কমিশনের কাছে তাদের সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার জন্য আহ্বান জানিয়েছি। কমিশন যদি নির্বাচন না পেছায় তবে আমরাও নির্বাচনে অংশগ্রহণ করব না। নির্বাচন না পেছালে ব্যালট পেপারের আমাদের প্রার্থীর প্রতীক না রাখার জন্য ইসি সচিবকে বলেছি।’

গত ১৮ জানুয়ারি বগুড়া-১ আসনের সংসদ সদস্য আবদুল মান্নান মারা গেলে আসনটি শূন্য ঘোষণা করে সংসদ সচিবালয়।

যশোর-৬ আসনের সংসদ সদস্য ইসমাত আরা সাদেক চলতি বছরের ২১ জানুয়ারি মারা যাওয়ায় আসনটি শূন‌্য হয়।

 

 

ঢাকা/হাসিবুল/রফিক  

রাইজিংবিডি.কম

সম্পর্কিত বিষয়:

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়