ঢাকা, শুক্রবার, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২২ নভেম্বর ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

বুমরাহর হ্যাটট্রিকে দিশেহারা উইন্ডিজ

আবু হোসেন পরাগ : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৯-০১ ১১:০৩:৫৫ এএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৯-০১ ১১:৩৬:৩৪ এএম

ক্রীড়া ডেস্ক : সিরিজের প্রথম টেস্টে জাসপ্রিত বুমরাহর দুর্দান্ত বোলিংয়ে ১০০ রানে গুটিয়ে গিয়েছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যানরা ভারতের এই পেসারকে সামলাতে পারছেন না দ্বিতীয় টেস্টেও। আরো একবার স্কোর তিন অঙ্ক ছোঁয়ার আগেই অলআউট হওয়ার শঙ্কায় পড়েছে জেসন হোল্ডারের দল।

জ্যামাইকা টেস্টে শনিবার দ্বিতীয় দিন শেষে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ৮৭ রান তুলতেই ৭ উইকেট হারিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। বুমরাহ ১৬ রানে নিয়েছেন ৬ উইকেট, মাত্র তৃতীয় ভারতীয় বোলার হিসেবে করেছেন হ্যাটট্রিকও।

তার আগে হনুমা বিহারীর প্রথম সেঞ্চুরি ও ইশান্ত শর্মার প্রথম ফিফটিতে প্রথম ইনিংসে ভারত করেছে ৪১৬ রান। ৩ উইকেট হাতে নিয়ে এখনো ৩২৯ রানে পিছিয়ে আছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

স্যাবিনা পার্কে প্রথম দিনের ৫ উইকেটে ২৬৪ রান নিয়ে শনিবার দ্বিতীয় দিন শুরু করেছিল ভারত। ২৭ রান নিয়ে ব্যাটিং শুরু করা ঋষভ পন্তকে দিনের প্রথম বলেই ফিরিয়ে দেন হোল্ডার। ৪২ রান নিয়ে নামা বিহারী তুলে নেন ফিফটি।

রবীন্দ্র জাদেজা উইকেটে থিতু হয়েও ইনিংস বড় করতে পারেননি। বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান অভিষিক্ত রাকিম কর্নওয়ালকে তুলে মারতে গিয়ে ক্যাচ দেওয়ার আগে ৬৯ বলে করেন ১৬ রান।

 

 

এরপরই অষ্টম উইকেটে ১১২ রানের দারুণ এক জুটি উপহার দেন বিহারী ও ইশান্ত। বিহারী আগের টেস্টে মাত্র ৭ রানের জন্য সেঞ্চুরিবঞ্চিত হয়েছিলেন। এবার আর আক্ষেপে পুড়তে হয়নি। তুলে নেন ক্যারিয়ারের প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরি। ইশান্ত পেয়ে যান তার প্রথম ফিফটি।

ভারত শেষ ৩ উইকেট হারায় অবশ্য মাত্র ২ রানে। ২২৫ বলে ১৬ চারে ১১১ রান করেন বিহারী। ৮০ বলে ৭ চারে ৫৭ রান আসে ইশান্তের ব্যাট থেকে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে হোল্ডার ৭৭ রানে ৫টি ও কর্নওয়াল ১০৫ রানে নেন ৩ উইকেট।

ব্যাটিংয়ে নেমে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৯ রানেই হারায় প্রথম উইকেট। জন ক্যাম্পবেলকে উইকেটের পেছনে ক্যাচ বানিয়ে উদ্বোধনী জুটি ভাঙেন বুমরাহ। ২৫ বছর বয়সি এই পেসার নিজের পরের ওভারে এসে করেন হ্যাটট্রিক।

বুমরাহ হ্যাটট্রিক মিশনের শুরুটা করেন ড্যারেন ব্রাভোকে স্লিপে ক্যাচ বানিয়ে। পরের বলে এলবিডব্লিউ শামার ব্রুকস। রিভিউ নিয়েও বাঁচতে পারেননি তিনি। হ্যাটট্রিক বলের সামনে ছিলেন রোস্টন চেজ। বুমরাহর ইন-সুইঙ্গার চেজের প্যাডে লাগলে এলবিডব্লিউয়ের আবেদনে সাড়া দেননি আম্পায়ার। বিরাট কোহলি চান রিভিউ। তাতে পাল্টে সিদ্ধান্ত। হ্যাটট্রিক করে বুমরাহ বসেন হরভজন সিং ও ইরফান পাঠানের পাশে।

একটু পর ক্রেইগ ব্রাফেটকে ফিরিয়ে বুমরাহ পূর্ণ করেন পাঁচ উইকেট, সিরিজে দ্বিতীয়বার। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৫ উইকেট হারায় ২২ রানের মধ্যেই! প্রথম পাঁচজনের মধ্যে দুই অঙ্কে যেতে পারেন শুধু ব্রাফেট (১০)।

ষষ্ঠ উইকেটে ৪৫ রানের জুটিতে প্রতিরোধের চেষ্টা করেছিলেন শিমরন হেটমায়ার ও হোল্ডার। হেটমায়ারকে (৩৪) ফিরিয়ে এ জুটি ভাঙেন মোহাম্মদ শামি। একটু পর বুমরাহর ষষ্ঠ শিকারে পরিণত হন হোল্ডার (১৮)। দিনের বাকি সময়ে আর কোনো বিপদ হতে দেননি দুই অভিষিক্ত কর্নওয়াল (৪*) ও জাহমার হ্যামিল্টন (২*)।


রাইজিংবিডি/ঢাকা/১ সেপ্টেম্বর ২০১৯/পরাগ

ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন