ঢাকা, শুক্রবার, ১৯ আষাঢ় ১৪২৭, ০৩ জুলাই ২০২০
Risingbd
সর্বশেষ:

সুনসান খুলনার ক্রীড়াঙ্গন

আব্দুল্লাহ এম রুবেল : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০২০-০৩-২০ ১০:৫৮:৩৯ পিএম     ||     আপডেট: ২০২০-০৩-২১ ১:১০:৩৩ এএম
অনুশীলনে ব্যস্ত খুলনা সার্কিট হাউস মাঠের চিরচেনা দৃশ্য এখন আর নেই। এভাবেই খালি পড়ে আছে মাঠটি।

দুইদিন আগেই খুলনা সার্কিট হাউস মাঠে ভিড় লেগেই থাকতো। দুপুর গড়াতেই খুলনা সার্কিট হাউস মাঠে আসতে শুরু করতো ক্ষুদে ক্রিকেটাররা। প্রতিদিন প্রায় পাঁচশ’ ক্ষুদে ক্রিকেটার বিভিন্ন একাডেমিতে অনুশীলন করতো। হঠাৎ করেই খুলনার সেই চিরচেনা স্টেডিয়ামে সুনসান নীরবতা।

করোনা ভাইরাসের প্রভাবে সব ধরনের খেলাধুলা বন্ধ করার ঘোষণা দিয়েছে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়। সেই নিদের্শনা মেনে খুলনা জেলা ক্রীড়া সংস্থা দ্বিতীয় বিভাগ, তৃতীয় বিভাগ ক্রিকেট ও স্কুল ক্রিকেটের খেলা স্থগিত করেছে। বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে সার্কিট হাউস মাঠের সব একাডেমির অনুশীলন কার্যক্রম। খুলনা জেলা স্টেডিয়ামে অডিটোরিয়ামে বাস্কেটবল, ব্যাডমিন্টনের অনুশীলনও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। স্টেডিয়ামে কর্মকর্তারাও আসছেন না। সব মিলিয়ে খুলনার ক্রীড়াঙ্গনে এখন একেবারেই ভিন্ন চেহারায়। থমকে আছে সব কিছুই। খুলনার ক্রীড়াঙ্গনে এমন আবহ এর আগে কখনও দেখা যায়নি।

আগামী ১ থেকে ১০ এপ্রিল বাংলাদেশ গেমস অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিলো। যদিও এই গেমস এরই মধ্যে স্থগিত করা হয়েছে। এই গেমসকে সামনে রেখে স্টেডিয়ামের অডিটোরিয়ামে প্রস্তুত হচ্ছিলো খুলনা বাস্কেটবল দল। সেই অনুশীলন বন্ধ রয়েছে। আগামী ৩০ মার্চ থেকে শুরু হওয়ার কথা ছিলো আন্তঃ জেলা ক্রিকেট প্রতিযোগিতা। এই প্রতিযোগিতার জন্য খুলনা জেলা দলের ক্যাম্প শুরু হওয়ার কথা ছিলো গত বুধবার থেকে। সেই ক্যাম্পও বাতিল করেছে জেলা ক্রীড়া সংস্থা।
বিসিবির খুলনা বিভাগীয় কোচ মনোয়ার আলী মনু জানান, পরিস্থিতি অনুযায়ী এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। মানুষের জীবনের মূল্য সবার আগে। সবারই এখন সব ধরনের জমায়েত এড়িয়ে চলা উচিৎ। আমরা সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক এরই মধ্যে সব একাডেমির কার্যক্রম বন্ধ করেছি। জেলা ক্রিকেট দলের ক্যাম্পও বাতিল করা হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে আবারও সব কার্যক্রম শুরু হবে।

বিসিবির জেলা কোচ শামছুল আলম রনি বলেন, সার্কিট হাউস মাঠে এমন নীরব পরিস্থিতি আমি কখনও দেখিনি। ক্রিকেটারদের মধ্যে আগে থেকেই সর্তকতা ছিলো। অভিভাবকরাও এই অবস্থায় তাদের ছেলেদের মাঠে পাঠাতে আগ্রহী নয়।

খুলনা জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক কাজী শামীম আহসান সব ক্রিকেটারকে আপাতত বাসায় থাকার পরামর্শ দেন। তিনি বলেন, খেলাধুলা তো পরে আগে সবাইকে ভালো থাকতে হবে। এ জন্য আমরা খেলাধুলার সব কার্যক্রম বন্ধ করে দিয়েছি। চিকিৎসকের পরমার্শ অনুযায়ী সবার চলা উচিৎ। আশা করি পরিস্থিতি খুব অল্প সময়ে স্বাভবিক হয়ে উঠবে। সব কার্যক্রমও স্বাভাবিক হয়ে উঠবে।


খুলনা/রুবেল/আমিনুল